জাল কুপন বিক্রির অভিযোগ! হাতেনাতে ধরল পুলিশ

147

রায়গঞ্জ: রায়গঞ্জ মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালের টিকার লাইনে জাল কুপন বিক্রি করতে গিয়ে পুলিশের হাতে ধরা পড়ল এক যুবক। শনিবার এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে তীব্র উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে রায়গঞ্জ মেডিকেল কলেজ চত্বরে। পুলিশ ওই যুবককে আটক করে রায়গঞ্জ থানায় নিয়ে যায়।

পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, ধৃত ওই যুবকের নাম গৌতম রায়। বাড়ি রায়গঞ্জ থানার বাহিন গ্রাম পঞ্চায়েতের লহুজ গ্রামে। এদিন বিকেলে রায়গঞ্জ মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে টিকার লাইনে জাল কুপন বিক্রি করতে গেলে তাঁকে হাতেনাতে ধরে ফেলে পুলিশ। যদিও অভিযুক্ত গৌতম রায়ের সাফাই, তিনি জাল কুপন বিক্রি করেননি। পুলিশকে ঘুষ দেওয়ার কথা বলায় তাঁকে মারধর করা হয়।

- Advertisement -

রায়গঞ্জ মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালের নোডাল অফিসার বিপ্লব হালদার জানান, রায়গঞ্জ মেডিকেল কলেজের টিকাকেন্দ্রে মাইকের মাধ্যমে বিনামূল্যে টিকা দেওয়ার কথা প্রচার করা হচ্ছে। এখানে কোনও দালালরাজ বরদাস্ত করা হবে না। রায়গঞ্জ থানার আইসি কৃষ্ণেন্দু দাসের বক্তব্য, একজনকে আটক করা হয়েছে। ঘটনার তদন্ত চলছে।