বুথের পর্যালোচনা শেষ, রবিবার রাজীবকে রিপোর্ট দেবে তৃণমূল

385

ফালাকাটা: ফালাকাটা বিধানসভা কেন্দ্রের পূর্ব কাঁঠালবাড়ি গ্রাম পঞ্চায়েতের ২১টি বুথে টানা ১৬ দিন ধরে বুথস্তরের পর্যালোচনা বৈঠক করে রিপোর্ট তৈরি করেছে তৃণমূল কংগ্রেস। দলের এই গোপন রিপোর্ট খামবন্ধ অবস্থায় রবিবার রাজীব বন্দোপাধ্যায়কে দেবেন তৃণমূলের দাপুটে নেতা মনোরঞ্জন দে। সূত্রের খবর, এই ক’দিনে পূর্ব কাঁঠালবাড়িতে দলের হাল অনেকটা মজবুত হয়েছে। মনোরঞ্জন দে-র কর্মীসভায় শয়ে শয়ে মানুষ উপস্থিত ছিলেন। স্থানীয় নেতাদের মান অভিমানও অনেকটা কেটেছে। তবে এলাকার নানা সমস্যা ও দাবির কথাও উঠে এসেছে। সব মিলে দলের অবস্থান এখন অনেকটাই ভালো বলে তৃণমূল নেতৃত্বের দাবি। তবে বিজেপির পালটা দাবি, উপনির্বাচনের জন্য মানুষকে নানা প্রলোভন দেখালেও তৃণমূলের কোনও লাভ হবে না।

গত লোকসভা নির্বাচনে পূর্ব কাঁঠালবাড়ির ২১টি বুথের মধ্যে ২০টি বুথেই বিজেপির থেকে ভোট কম পায় তৃণমূল কংগ্রেস। তারপর থেকেই এই অঞ্চলে শাসক দলের সংগঠন অনেকটাই নড়বড়ে হয়ে যায়। ২৯ অগাস্ট এখানে কর্মীসভায় এসে সাংগঠনিক দুর্বলতা নিয়ে প্রশ্ন তোলেন ফালাকাটা কেন্দ্রের জন্য তৃণমূল কংগ্রেসের তরফে বিশেষ দায়িত্বপ্রাপ্ত তথা বনমন্ত্রী রাজীব বন্দোপাধ্যায়। তিনি ফালাকাটা উপনির্বাচনের জন্য এই অঞ্চলটি বিশেষভাবে দেখার দায়িত্ব দেন জেলা পরিষদের সহকারি সভাধিপতি তথা দলের আলিপুরদুয়ার-১ ব্লক সভাপতি মনোরঞ্জন দে-কে। প্রকাশ্যে দায়িত্ব পাওয়ায় মনোরঞ্জনবাবুর কাছে বিষয়টি চ্যালেঞ্জের হয়ে দাঁড়ায়। এরপর গত ৬ সেপ্টেম্বর থেকে এই অঞ্চলে মাটি কামড়ে পড়ে রয়েছেন মনোরঞ্জন দে।

- Advertisement -

তিনি রোজ ১-২টি বুথকে ধরে পর্যালোচনা বৈঠক ও কর্মীসভা করেন। এইসব কর্মসূচিতে এলাকার মানুষ সেতু, শ্মশানঘাট, রাস্তা, পথবাতি ইত্যাদি নানা সমস্যার কথা জানান। আবার দলের নেতাকর্মীদের অভিমানের বিষয়টিও প্রকাশ্যে চলে আসে। এছাড়াও দলের ভিতরে কোথায় দুর্বলতা রয়েছে, গত নির্বাচনগুলিতে দল এখানে কেন ভোট কম পেয়েছে ইত্যাদি বিষয় নিয়েও মূল্যায়ন করা হয়। সব কিছু কাটিয়ে সংগঠনের অবস্থানকে মজবুত করার চেষ্টা করেন মনোরঞ্জন দে। তাঁর নেতৃত্বে শনিবারই ছিল যোগেন্দ্রনগরে শেষ বুথস্তরের বৈঠক ও কর্মীসভা। এই কর্মসূচিতে এদিনও প্রচুর মানুষের ভিড় হয়। এদিকে রবিবার ফের ফালাকাটায় আসছেন রাজীব বন্দোপাধ্যায়। তাঁর কাছে পূর্ব কাঁঠালবাড়ির খাম বন্ধ রিপোর্ট জমা দেওয়া হবে বলে সূত্রের খবর।

দলের নির্দেশে প্রকাশ্যে মুখ খুলতে না চাইলেও মনোরঞ্জন দে এদিন বলেন, পূর্ব কাঁঠালবাড়িতে লাগাতার কর্মসূচি করা হয়েছে। এদিন ছিল প্রথম ধাপের শেষ কর্মসূচি। যাবতীয় রিপোর্ট রবিবার রাজীব বন্দোপাধ্যায়কে জানানো হবে। তাঁর দাবি, এই অঞ্চলে দলের অবস্থান এখন অনেকটাই ভালো জায়গায় রয়েছে। তবে বিজেপির জেলা সহ সভাপতি জয়ন্ত রায় বলেন, পূর্ব কাঁঠালবাড়িতে বিজেপির ভোট ব্যাংক যথেষ্ট ভালো। তৃণমূলের নেতারা ভোটারদের নানা প্রলোভন দিচ্ছে। এসব করে ওদের কোনও লাভ হবে না।