জাতীয় দলে ডাক পেয়ে বিস্মিত বেঞ্জেমা

প্যারিস : প্রায় ছয় বছর জাতীয় দলে ব্রাত্য ছিলেন। সেখান থেকে প্রত্যাবর্তন সরাসরি ইউরো কাপের দলে। এই খবরে চমকে গিয়েছিলেন করিম বেঞ্জেমা নিজেও।

সম্প্রতি এক সাক্ষাত্কারে বিষয়টি নিয়ে মুখ খুলেছেন ফরাসি ফরোয়ার্ড। তাঁর কথায়, দিনটা খুবই স্পেশাল। আমি বেশ কিছু মেসেজ পাই আমার প্রত্যাবর্তনের জল্পনা নিয়ে তবে আমি অন্যদের মতো টিভিতে চোখ রেখেছিলাম। প্রথম প্রতিক্রিয়া হিসেবে তিনি বলেন, আমি একইসঙ্গে খুশি ও গর্ব অনুভব করছিলাম। হাল না ছাড়ার সব মুহূর্তকে মনে করছিলাম। অনেকদিন পর জাতীয় দলে ফিরে আমি চমকে গিয়েছিলাম। ফ্রান্সের কোচ দিদিয়ের দেশঁ নিজে তাঁকে একথা জানাননি। বেঞ্জেমার দাবি, আমি দীর্ঘদিন পর কোচের মুখোমুখি হয়েছিলাম। আমরা অনেকক্ষণ কথা বলি। কিন্তু তিনি আমাকে একবারও দলে ফেরা বা ইউরো খেলার বিষয়ে কিছু বলেননি। তিনি শুধু বলেন, আমরা একটা বড় পদক্ষেপ নিতে চলেছি। এর বেশি কিছু বলেননি।

- Advertisement -

কোনও ট্রফি না পেলেও রিয়াল মাদ্রিদ মরশুমটা ভালোই কাটিয়েছে বলে দাবি বেঞ্জেমার। তাঁর কথায়, দলে ষাটের বেশি চোট ছিল। বেশিরভাগ ম্যাচেই সেরা দল নামানো যায়নি। এছাড়া করোনা সংক্রমণ ছিল। মরশুমটা আমাদের জন্য বেশ জটিল ছিল। তা সত্বেও আমরা চ্যাম্পিয়ন্স লিগের শেষ চারে গিয়েছি, শেষ দিন পর্যন্ত লিগ জেতার দৌড়ে ছিলাম। কোচ জিনেদিন জিদানের ক্লাব ছাড়ার জল্পনা নিয়ে বলেন, এখনও তিনি ক্লাবের কোচ। আমি নিশ্চিত তিনি থাকবেন। জিদান সবসময় আমার কাছে সৎ থেকেছেন। এজন্যই আমি ওঁকে এত সম্মান করি। শুধু কোচ নয়, তিনি আমার দাদার মতো। সূত্রের খবর, ভবিষ্য‌ নির্ধারণ করতে চলতি সপ্তাহে ক্লাবকর্তাদের সঙ্গে বৈঠকে বসবেন জিদান।