পাচারের আগে ৫ লক্ষ টাকার গাঁজা উদ্ধার, গ্রেপ্তার ২

561

ফাঁসিদেওয়া, ৯ জুনঃ গোপন সূত্রের খবরের ভিত্তিতে অভিযানে নেমে পুলিশ বিপুল পরিমাণ গাঁজা উদ্ধার করল। ঘটনায় ২ জনকে পাচারে জড়িত থাকার অভিযোগে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। পুলিশ সূত্রের খবর, সঞ্জয় সিংহ (৩৫) বীরভূম জেলার সিউড়ি এবং রামু সোধরা (৩৫) বর্ধমান জেলর কালনার বাসিন্দা। পাচারে ব্যবহৃত লরিটিও আটক করা হয়েছে। ঘোষপুকুর ফাঁড়ির ওসি অভিজিৎ বিশ্বাসের কাছে গোপন সূত্রে খবর আসে লক্ষাধিক টাকার গাঁজা কোচবিহার থেকে পাচারের উদ্দেশ্যে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে। সেই খবরের ভিত্তিতে অভিযান শুরু হয়। মঙ্গলবার ফাঁসিদেওয়া ব্লকের ঘোষপুকুর মোড় থেকে সন্দেহের বশে একটি খালি লরি পুলিশ আটক করে। ওই লরি থেকে প্রায় ২০০ কেজি গাঁজা উদ্ধার হয়। এরপরই পুলিশ লরির চালক এবং খালাসিকে গ্রেপ্তার করে। পুলিশ সূত্রের খবর, উদ্ধার হওয়া গাঁজা পাচারের উদ্দেশ্যে কোচবিহার জেলার নিশিগঞ্জ থেকে মুর্শিদাবাদের ধুলিয়ানে নিয়ে যাওয়া হচ্ছিল। উদ্ধার হওয়া গাঁজার আনুমানিক বাজার মূল্য প্রায় ৫ লক্ষ টাকা। বুধবার ধৃতদের শিলিগুড়ি মহকুমা আদালতে তোলা হবে। ডিএসপি (গ্রামীণ) অচিন্ত্য গুপ্ত জানিয়েছেন, গাঁজা পাচার চক্রে জড়িত থাকার অভিযোগে ২ জন গ্রেপ্তার হয়েছে৷ ইতিমধ্যেই এনডিপিএস ধারায় মামলা রুজু করে, এই পাচার চক্রে আর কারা জড়িত তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে। কয়েকদিন আগে, ঘোষপুকুর ফাঁড়ির পুলিশ প্রায় প্রায় ১৫ লক্ষ টাকা মূল্যের ৬ কুইন্টাল গাঁজা উদ্ধার করে। ওই ঘটনায় ২ জন গ্রেপ্তার হয়েছিল। ধৃতদের বুধবার শিলিগুড়ি আদালতে পাঠানো হবে। পুলিশ ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে। চলতি মাসের ৪ তারিখ ঘোষপুকুর ফাঁড়ির পুলিশ প্রায় ৬০০ কেজি গাঁজা উদ্ধার করে। ঘটনায় ২ জন গ্রেপ্তার হয়েছিল। এরপর ৬ তারিখ বিধাননগর তদন্ত কেন্দ্রের পুলিশ প্রায় ২১ কেজি গাঁজা উদ্ধার করে। উভয় ঘটনায় পাচারে ব্যবহৃত গাড়ি পুলিশ বাজেয়াপ্ত করেছে।