শহিদের ঘরে ধনকরের সফর ঘিরে জল্পনা

269
ফাইল ছবি।

অসিত কর, আলিপুরদুয়ার : লাদাখ সীমান্তে শহিদ বিপুল রায়ের পরিবারের পাশে রয়েছে রাজ্য সরকার। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সম্প্রতি উত্তরকন্যায় প্রশাসনিক বৈঠকে এসে শহিদের স্ত্রীর চাকরির ব্যবস্থা করেছেন। এবার  ৯ অক্টোবর রাজ্যপাল জগদীপ ধনকর আলিপুরদুয়ারে এসে শহিদের পরিবারের সঙ্গে দেখা করবেন বলে প্রশাসন সূত্রে খবর। রাজ্যপাল-রাজ্য সরকারের সম্পর্কের কথা এখন রাজ্যরাজনীতিতে চর্চার বিষয়। প্রায় প্রতিদিনই নিয়ম করে রাজ্য সরকারের বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগরে দেন ধনকর। জবাব দিতে পিছিয়ে থাকে না রাজ্য সরকারও। এই পরিস্থিতিতে  রাজ্যপালের শহিদের পরিবারের সঙ্গে দেখা করতে চাওয়ায় রাজনৈতিক মহলে জল্পনা শুরু হয়েছে। তৃণমূল কংগ্রেসের বক্তব্য, শহিদের স্ত্রীকে রাজ্য সরকারের চাকরি দেওয়ার পরই রাজ্যপালের এই সফর। ফলে এর পিছনে কেন্দ্রীয় সরকারের কোনও রাজনীতি থাকতে পারে বলে মনে করছেন শাসকদলের নেতারা। যদিও এই অভিযোগ উড়িয়ে দিয়েছেন বিজেপি নেতত্ব।

তৃণমূলের জেলা সভাপতি মৃদুল গোস্বামী বলেন, শহিদ বিপুল রায়ের স্ত্রীকে মুখ্যমন্ত্রী চাকরি দিয়েছেন। এখন রাজ্যপাল কেন, কবে আসবেন তা আমাদের জানা নেই। তবে মুখ্যমন্ত্রী ওই পরিবারের পাশে সবসময় আছেন। এবার রাজ্যপালের কর্মসূচি যদি শুধু ওই শহিদ পরিবারের সঙ্গে দেখা করার থাকে, তবে এর পিছনে কোনও রাজনৈতিক অভিসন্ধি থাকতে পারে। বিধায়ক সৌরভ চক্রবর্তী বলেন, মুখ্যমন্ত্রী শহিদের স্ত্রীকে চাকরি দিয়ে দিয়েছেন। কেন্দ্রীয় সরকার থেকে তো চাকরি দেওয়া হয়নি। এখন রাজ্যপাল কী কারণে ওই বাড়িতে আসছেন, সেটাই আমাদের প্রশ্ন। এর পিছনে রাজনৈতিক কারণ থাকতে পারে। তবে যে কেউ শহিদের বাড়িতে যেতে পারেন। পালটা বিজেপির জেলা সভাপতি গঙ্গাপ্রসাদ শর্মা বলেন, রাজ্যপাল যে কোনও শহিদের পরিবারের সঙ্গে দেখা করতেই পারেন। এটা তাঁর অধিকার। ফলে এটা নিয়ে এসব কথা ঠিক নয়। জেলা প্রশাসন সূত্রে জানা গিয়েছে, এদিন বিপুল রায়ের স্ত্রী রুম্পা রায় ডুয়ার্সকন্যায় এসে চাকরিতে যোগদান করেছেন। এর পাশাপাশি তৃণমূলের উদ্যোগে প্যারেড গ্রাউন্ডে শহিদ বিপুল রায়ের মূর্তি বসতে চলেছে।

- Advertisement -

শহিদের ঘরে ধনকরের সফর ঘিরে জল্পনা| Uttarbanga Sambad | Latest Bengali News | বাংলা সংবাদ, বাংলা খবর | Live Breaking News North Bengal | COVID-19 Latest Report From Northbengal West Bengal Indiaএদিকে, রাজ্যপাল জগদীপ ধনকরের সফরের খবরে সেনাবাহিনীর তরফে শহরের প্যারেড গ্রাউন্ডে প্রস্তুতি শুরু হয়ে যায়। মঙ্গলবার সকাল থেকেই মাঠের এক প্রান্তে হেলিপ্যাড খতিয়ে দেখেন সেনাবাহিনীর কর্তারা। রাজ্যপালের হেলিকপ্টার এলে অবতরণে যাতে কোনও সমস্যা না হয়ে তা খতিয়ে দেখা হয়। রাজ্য সরকারের তরফে প্যারেড গ্রাউন্ডে একটি হেলিপ্যাড কয়েক বছর আগেই তৈরি করাই রয়েছে। রাজ্যপালের সফর প্রসঙ্গে আলিপুরদুয়ারের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার অম্লান ঘোষ বলেন, এই বিষয়ে রাজ্য সরকারের পক্ষ থেকে আমাদের কাছে এদিন বিকেলে খবর এসেছে। ৯ অক্টোবর রাজ্যপাল আলিপুরদুয়ারে আসছেন। তিনি আলিপুরদুয়ার-২ ব্লকের টটপাড়া-২ পঞ্চায়েতের বিন্দিপাড়া এলাকায় শহিদ বিপুল রায়ের বাড়িতে যাবেন।  সেনাবাহিনীর পক্ষ থেকেও একথা জানানো হয়েছে। জেলা পুলিশ ও প্রশাসন প্রস্তুত রয়েছে।