ঋতুমতীদের উপর থেকে নিষেধাজ্ঞা সরানোর আর্জি, নোটিশ গুজরাত হাইকোর্টের

113

গান্ধিনগর: ঋতুমতীদের নিয়ে সামাজিক কুসংস্কার দূর করার প্রস্তাব দেওয়া হল গুজরাত হাইকোর্টের তরফে। সরকারি, বেসরকারি বা কোনও ধর্মীয়স্থানে ঋতুমতীদের কোনওরকম হেনস্থার শিকার হতে না হয়, সেই ব্যাপারে পদক্ষেপ গ্রহণ জন্য কেন্দ্রের কাছে নোটিশ পাঠালো আদালত। পাশাপাশি ঋতুস্রাব নিয়ে সচেতনতা কিভাবে বৃদ্ধি করা যায় তা নিয়েও পরামর্শ চেয়েছে হাইকোর্ট। ঋতুমতীদের প্রতি এই অবিচার নিয়ে জনস্বার্থ মামলা দায়ের করেন সমাজকর্মী নির্ঝরী সিন্‌হা মাট্টার।

গতবছর ফেব্রুয়ারি মাসে গুজরাতের ভুজে শ্রী সহজানন্দ গার্লস ইনস্টিটিউটের হোস্টেলে প্রায় ৬৮ জন ঋতুমতীকে হেনস্থার অভিযোগ ওঠে। অভিযোগ করা হয়, ঋতুস্রাবের দিনগুলিতে সেখানে হোস্টেলের মূল ভবনের নীচে একটি ঘরে মেয়েদের আলাদাভাবে থাকতে বাধ্য করা হয়। তবে, গুজব ছড়ায় মেয়েরা অনেকেই এই নিয়ম মানেননি সেই কারণে ৬৮ জন কলেজ ছাত্রীর সত্যতা যাচাই করার জন্য পরীক্ষা করে হস্টেল কর্তৃপক্ষ। বিষয়টি সামনে আসতেই প্রতিবাদের ঝড় ওঠে বিভিন্ন মহলে। মামলা চলাকালীন নির্ঝরী সিনহার আইনজীবী মেঘা জানি আদালতে জানান, যদিও ঋতুস্রাব একটি শারীরবৃত্তীয় ঘটনা। প্রতিটি মহিলার প্রজনন চক্রের জন্য আবশ্যক। একটি প্রাকৃতিক অংশ, তবুও মহিলাদের এটির জন্য হেনস্থা ও বৈষম্যের শিকার হতে হয়।

- Advertisement -