লালার নমুনা সংগ্রহের কাজে অব্যবস্থার অভিযোগ

196

হলদিবাড়ি: লালার নমুনা সংগ্রহের কাজে অব্যবস্থার অভিযোগ উঠল কোচবিহার জেলার হলদিবাড়ি ব্লকে। সোমবার এই অভিযোগ তুলে ব্লকের উত্তর বড় হলদিবাড়ি গ্রাম পঞ্চায়েতের অধীন কাশিয়াবাড়ি কালুরাম হাইস্কুলে বিক্ষোভ দেখালেন লালার নমুনা দিতে আসা মানুষজন। এর জেরে দীর্ঘ সময় ধরে নমুনা সংগ্রহের কাজ ব্যাহত হয়। পরে ঘটনাস্থলে হলদিবাড়ি থানার পুলিশ এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। পরে ফের নমুনা সংগ্রহের কাজ শুরু হয়।

নমুনা দিতে আসা গর্ভবতী মহিলাদের অভিভাবকদের অভিযোগ, লালার নমুনা সংগ্রহের কাজে ব্যাপক প্রশাসনিক ত্রুটি রয়েছে। শিবির করে একদিনে প্রচুর মানুষের নমুনা সংগ্রহের উদ্যোগ নেওয়া হলেও সরকারি স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার কোনও ব্যবস্থা করা হয়নি। সামাজিক দূরত্ববিধি না মেনে একসঙ্গে প্রচুর গর্ভবতী মহিলাদের এক লাইনে দাঁড় করানো হয়েছে। একইভাবে অনেকে বসে রয়েছেন। মাথার উপর শেড না থাকায় প্রখর রোদের মধ্যে দাঁড় করিয়ে রাখা হয়েছে।

- Advertisement -

এদিকে, অভিভাবকদের মধ্যে অনেকেরই মুখে মাস্ক ছিল না। অভিভাবকদের মধ্যে আশিস সরকার, আবুবক্কর সিদ্দিক, সময় রায়, আফসার হক জানান, একই জায়গায় গর্ভবতী ও বয়স্ক ব্যক্তিদের সঙ্গে আক্রান্তের পরিবারের সদস্যদের লালার নমুনা সংগ্ৰহ করা হচ্ছে। বিষয়টি সামনে আসতেই ক্ষোভে ফেটে পড়েন গর্ভবতী মহিলা সহ তাঁদের অভিভাবকরা। তাঁদের দাবি, এত সংখ্যক গর্ভবতী মহিলাদের মাঝে আক্রান্তের পরিবারের সদস্যদের নমুনা সংগ্রহের ঘটনায় আতঙ্ক ছড়ায়। এতেই বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করেন উপস্থিত অভিভাবকরা। তাঁদের মধ্যে একজন বলেন, ‘সকাল ১০টায় শুরু হওয়ার কথা থাকলেও দুপুর ১টায় শিবির শুরু হয়। ফলে দূরদূরান্ত থেকে আসা অনেক গর্ভবতী মহিলা না খেয়ে দীর্ঘক্ষণ অপেক্ষা করতে গিয়ে অসুস্থ হয়ে পড়েন।

হলদিবাড়ির বিডিও সঞ্জয় পন্ডিত জানান, এত প্রচার করার সত্ত্বেও মানুষের মধ্যে সচেতনতা বৃদ্ধি পাচ্ছে না। তাই এমন সমস্যা তৈরি হচ্ছে। এদিন শিবিরে মোট ১৭৯ জনের লালার নমুনা সংগ্রহ করা হয়।