নাবালিকা ধর্ষণ ঘিরে উত্তপ্ত হরিশ্চন্দ্রপুর, আক্রান্ত পুলিশ

250

হরিশ্চন্দ্রপুর: নাবালিকা ধর্ষণের অভিযোগে অভিযুক্ত ধরে  গণধোলাই দিলেন গ্রামবাসীরা। শুক্রবার গভীর রাতে মালদার হরিশ্চন্দ্রপুরের ঘটনা। ঘটনাস্থলে পুলিশ পৌঁছালে পুলিশকে লক্ষ্য করে ইঁট-বৃষ্টি করা হয়। মাথা ফাটে এক এএসআইয়ের। জখম হয়েছে আরও এক সিভিক ভলান্টিয়ার। রাতভর এনিয়ে তীব্র উত্তেজনা ছিল হরিশ্চন্দ্রপুরের ইসলামপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের চন্ডীপুর অঞ্চলে। উত্তেজনা থামাতে নামানো হয় বিশাল পুলিশ বাহিনী। পরিস্থিতি সামাল দিতে নামে র‍্যাফ।

জানা গেছে, হরিশ্চন্দ্রপুর থানার চন্ডীপুর গ্রামে নয় বছরের এক ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগ ওঠে নজরুল ইসলাম ওরফে ভোলা নামে এক বৃদ্ধের বিরুদ্ধে। বিষয়টি জানাজানি হতে হতে রাত হয়ে যায়। গুরুতর জখম অবস্থায় নির্যাতিতাকে প্রথমে হরিশ্চন্দ্রপুর হাসপাতাল পরে চাঁচল সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়। ইতিমধ্যে ক্ষোভে ফেটে পড়ে গ্রামবাসীরা। ধরে আনা হয় অভিযুক্তকে। এরপরেই শুরু হয় গণধোলাই। খবর পেয়ে ছুটে আসে পুলিশ। অভিযুক্তকে উদ্ধার করতে গেলে মারমুখী হয়ে ওঠে গ্রামবাসীরা। নির্যাতিতার মায়ের অভিযোগ, ছোট্ট মেয়েটির ভবিয্যৎ নষ্ট করেছে ওই ব্যাক্তি। তাকে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দিতে হবে। এ প্রসঙ্গে হরিশ্চন্দ্রপুর থানা আইসি সঞ্জয় কুমার দাস জানান, তাঁরা অভিযুক্তকে গ্রেপ্তার করেছেন। ঘটনার তদন্ত শুরু হয়েছে। এদিন অভিযুক্তকে আদালতে তোলা হলে বিচারক ১৪ দিনের জেল হেফাজত মঞ্জুর করেছে।

- Advertisement -