উচ্চপ্রাথমিকের নিয়োগে জট, সব মামলার শুনানি ২০ জুলাই

124
ছবি: সংগৃহীত

কলকাতা: উচ্চপ্রাথমিকে শিক্ষক নিয়োগ প্রক্রিয়ার ওপর থেকে ৯ জুলাই স্থগিতাদেশ তুলে নিয়েছিলেন বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায়। কিন্তু বহু চাকরিপ্রার্থীর অভিযোগ, তাঁদের যোগ্যতা থাকা সত্বেও বঞ্চিত হতে হবে কেন? স্কুল সার্ভিস কমিশন আগে তাঁদের অভিযোগের নিষ্পত্তি করুক। এরপর নিয়োগ প্রক্রিয়া শুরু হোক। নিয়োগ প্রক্রিয়ার উপর স্থগিতাদেশ চেয়ে কলকাতা হাইকোর্টের ডিভিশন বেঞ্চে আপিল করেন রাজীব ব্রহ্ম নামে এক চাকরিপ্রার্থী সহ আরও অনেকেই। বিচারপতি সুব্রত তালুকদার ও বিচারপতি সৌগত ভট্টাচার্যের ডিভিশন বেঞ্চে আপিল মামলা দায়ের হয়। মঙ্গলবার আদালতের তরফে জানানো হয়, এই সংক্রান্ত যত মামলা রয়েছে সবগুলির একত্রে আগামী ২০ জুলাই শুনানি হবে। তবে নিয়োগ প্রক্রিয়া যেমন চলছে চলবে।

গত ২১ জুন উচ্চপ্রাথমিকে নিয়োগের জন্য ইন্টারভিউ তালিকা প্রকাশ করেছিল স্কুল সার্ভিস কমিশন। কিন্তু তালিকায় নানা ত্রুটির জন্য নিয়োগ প্রক্রিয়ায় স্থগিতাদেশ জারি করেছিলেন বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায়। পরে স্কুল সার্ভিস কমিশন পুনরায় যে তালিকা প্রকাশ করেছিল তাতে সন্তোষ প্রকাশ করে নিয়োগ প্রক্রিয়া থেকে স্থগিতাদেশ তুলে নেন বিচারপতি গঙ্গোপাধ্যায়। কিন্তু চাকরিপ্রার্থীদের অভিযোগ নতুন তালিকাতেও এখনও ত্রুটি রয়েছে। সেই কারণেই তাঁরা ডিভিশন বেঞ্চের দ্বারস্থ হয়েছেন।

- Advertisement -