মালদা ২৮ জুলাইঃ শ্বশুর বাড়ির লোকেদের অত্যাচার সহ্য করতে না পারায় গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মঘাতী হলেন এক গৃহবধূ। শনিবার রাতে ঘটনাটি ঘটেছে ইংরেজবাজার শহরের গয়েসপুর কলতাপাড়া এলাকায়। মৃত গৃহবধূর নাম তাপসী পাশওয়ান(২৮)। পুলিশ দেহটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মালদা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠিয়েছে। মৃতার বাপের বাড়ির তরফ থেকে শ্বশুর জয় পাসওয়ান ও শাশুড়ি পুনম পাসওয়ানের বিরুদ্ধে ইংরেজবাজার থানায় অভিয়োগ দায়ের করা হয়েছে।
পরিবার সুত্রে জানা গিয়েছে, বেসরকারী সংস্থার কর্মী আকাশ পাসওয়ানের সঙ্গে  প্রায় ছয় বছর আগে প্রেম করে বিয়ে হয় তাপসীর।তাদের একটি পুত্র সন্তানও রয়েছে। কিন্তু ছেলের প্রেমের বিয়ে মেনে নেননি শ্বশুর জয় পাসওয়ান ও শাশুড়ি পুনম পাসওয়ান। তাই বিয়ের পর থেকেই তাঁরা তাপসীর ওপর অত্যাচার করতেন। অভিযোগ, গত কিছুদিন ধরে অত্যাচার চরম আকার ধারণ করে। শনিবার বাড়িতে একা ছিলেন তাপসী। সেই সময় তাঁর উপর অত্যাচার শুরু করে শ্বশুর ও শাশুড়ি। এরপরেই অভিমানে ও মানসিক আবসাদের জেরে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেন তিনি। ঘটনায় তীব্র চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়ে এলাকায়। অভিযোগের ভিত্তিতে তদন্তে নেমেছে পুলিশ। তবে ঘটনার পর থেকে পলাতক অভিযুক্ত দুই জন।