শম্পাকে সাহায্য করল আইআইএলএস

নকশালবাড়ি: উত্তরবঙ্গ সংবাদ-এর খবরের জেরে শম্পা বর্মনকে সাহায্য করল ইন্ডিয়ান ইনস্টিটিউট অফ লিগ্যাল স্টাডিজ (আইআইএলএস)। রবিবার আইআইএলএসের অধ্যক্ষ ডঃ গণেশ তিওয়ারি এবং রেজিস্ট্রার সঞ্জয় ভট্টাচার্য নকশালবাড়ির কোটিয়াজোতে শম্পার বাড়ি গিয়ে তাঁকে সংবর্ধনা জানান এবং আইনের বই উপহার দেন।

পাশাপাশি সংস্থার অধ্যক্ষ ঘোষণা করেন, শম্পা বর্মনের আইন নিয়ে পড়াশোনার যাবতীয় খরচ তাঁরা বহন করবেন। ২৯ জুলাই উত্তরবঙ্গ সংবাদ-এ ‘আইন নিয়ে পড়তে চায় শম্পা’ শীর্ষক প্রতিবেদন প্রকাশিত হয়। খড়িবাড়ি তারকনাথ সিন্দুরবালা বালিকা বিদ্যালয় থেকে এবার উচ্চমাধ্যমিকে কলা বিভাগে ৪৩০ নম্বর পেয়েছে শম্পা বর্মন। কিন্তু আইন নিয়ে পড়াশোনার ইচ্ছে থাকলেও আর্থিক সমস্যা বাধা হয়ে দাঁড়িয়েছিল। এমন পরিস্থিতিতে ইন্ডিয়ান ইনস্টিটিউট অফ লিগ্যাল স্টাডিজ পাশে দাঁড়ানোয় শম্পার মুখে হাসি ফুটেছে।

শম্পার বাবা গোপাল বর্মন বলেন, আমি ফুটপাথে চারাগাছ বিক্রি করে কোনওমতে চারজনের সংসার চালাচ্ছি। সংস্থাটি আমার মেয়ের পাঁচ বছরের আইন নিয়ে পড়াশোনার যাবতীয খরচ বহন করবে বলে জানিয়েছে। এতে আমরা সকলেই খুশি। সঞ্জয় ভট্টাচার্য বলেন, সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত খবর দেখে আমরা শম্পা বর্মনকে সাহায্যের সিদ্ধান্ত নিই। অর্থনৈতিক সংকটের মধ্যেও মেয়েটি উচ্চ