টেস্টে র‌্যাংকিংয়ে শীর্ষস্থান ধরে রাখল ভারত

দুবাই : আইসিসি টেস্ট র‌্যাংকিংয়ে নিজেদের শ্রেষ্ঠত্ব বজায় রাখল ভারতীয় ক্রিকেট দল। দ্বিতীয় স্থানে থাকা নিউজিল্যান্ড ব্যবধান কমালেও, শীর্ষস্থানে বিরাট ব্রিগেড। আজ প্রকাশিত অ্যানুয়াল আপডেটে ১২১ পয়েন্ট নিয়ে বাকিদের পিছনে ফেলে দিয়েছে টিম ইন্ডিয়া। ঠিক ১ পয়েন্ট পিছনে সেকেন্ড বয় কেন উইলিয়ামসনের নিউজিল্যান্ড। বলার কথা, ১৮ জুন শুরু প্রথম টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ ফাইনালে মুখোমুখি হবে এই দুই দল।

২০২০ মে মাস থেকে হওয়া সমস্ত ম্যাচ ও আগের দুই বছরের অর্ধেক ম্যাচের ফলাফলের নিরিখে এই মূল্যায়ন। গত দুটি সিরিজে অস্ট্রেলিয়া ও ইংল্যান্ডকে হারানোর লাভ পেয়েছে বিরাটরা। নতুন মূল্যায়নে ১ পয়েন্ট প্রাপ্তি। নিাউজিল্যান্ড পেয়েছে ২ পয়েন্ট। তৃতীয় ও চতুর্থ স্থানে যথাক্রমে ইংল্যান্ড ও অস্ট্রেলিয়া। দুই দলের মধ্যেও পয়েন্টের ব্যবধানও ১। এক্ষেত্রে অ্যাসেজ প্রতিপক্ষ অস্ট্রেলিয়াকে (১০৮) টপকে তিনে উঠে এসেছে জো রুটের ইংল্যান্ড (১০৯)।

- Advertisement -

ঘরের মাঠে ভারতের কাছে হারের প্রতিফলন অজিদের র‌্যাংকিংয়ে। নতুন মূল্যায়নে তারা ৫ পয়েন্ট খুইয়েছে। ইংল্যান্ড যোগ করেছে ৩ পয়েন্ট। পাকিস্তান রয়েছে পঞ্চম স্থানে। ছয় নম্বরে ওয়েস্ট ইন্ডিজ। ২০১৩-র পর যা ক্যারিবিয়ানদের সেরা টেস্ট র‌্যাংকিং। উলটো ছবি দক্ষিণ আফ্রিকার। র‌্যাংকিং ইতিহাসে নিজেদের সর্বনিম্ন সাত নম্বরে স্থানে রয়েছে তারা। শ্রীলঙ্কা ও বাংলাদেশ যথাক্রমে আট ও নয়ে।

ব্যাটিং বিভাগে শীর্ষস্থানে নিউজিল্যান্ড অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসন। স্টিভেন স্মিথ, মার্নাস লাবুশেন, জো রুট যথাক্রমে দুই, তিন ও চারে। অনেকটা পিছিয়ে বিরাট কোহলি সেরা পাঁচের শেষ স্থানে। রোহিত শর্মা ব্যাটসম্যানদের তালিকায় ছয় নম্বরে। সঙ্গী ঋষভ পন্থ ও নিউজিল্যান্ডের হেনরি নিকোলস। প্রথম ভারতীয় উইকেটকিপার হিসেবে র‌্যাংকিংয়ে প্রথম দশে থাকার কৃতিত্ব গড়েছেন ঋষভ। বিরাটের টেস্ট ব্রিগেডের অন্যতম দুই স্তম্ভ চেতেশ্বর পূজারা ও আজিঙ্কা রাহানে রয়েছেন ১৪ ও ১৫তম স্থানে।

বোলিং বিভাগে এক নম্বর স্থান দখলে রেখেছেন প্যাট কামিন্স। ঠিক পিছনেই রবিচন্দ্রন অশ্বীন। বিগত সিরিজগুলিতে দুর্দান্ত বোলিংয়ে সুফল পেয়েছেন ভারতীয় অফস্পিনার। অশ্বীন ছাড়া আর কোনো ভারতীয় বোলার সেরা দশে জায়গা পাননি। জসপ্রীত বুমরাহ আছেন এগারোতে। অলরাউন্ডারদের শীর্ষে ওয়েস্ট ইন্ডিজ অধিনায়ক জেসন হোল্ডার। রবীন্দ্র জাদেজা ও রবিচন্দ্রন অশ্বীনরা আছেন তিন ও চারে।