প্রজাতন্ত্র দিবসে সাহসিকতার পুরস্কার পাবেন গালওয়ানে নিহত সেনারা

64

নয়াদিল্লি: গালওয়ান প্রদেশে দেশের সীমান্তরক্ষার দায়িত্বপালনের সময় প্রাণ হারানো বীর সেনাদের প্রজাতন্ত্র দিবসে তাদের পরিবারের হাতে সাহসিকতার পুরস্কার তুলে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে ভারত সরকার। পরমবীর চক্র, মহাবীর চক্র, বীর চক্রের মতো সাহসিকতার পুরস্কারে নিহত সেনাদের ভূষিত করা হবে।

প্রকৃত নিয়ন্ত্রণরেখা বরাবর গোলাগুলি চলবে না। এমনই চুক্তি হয়েছিল ভারত-চিনের মধ্যে। সেদিন গোলাগুলি চলেনি বটে! তার বদলে আরও ভয়াবহ ষড়যন্ত্র করে রেখেছিল চিনা সেনা। ২০২০-র জুন মাসে লাদাখের গালওয়ান উপত্যকা দিয়ে ভারতীয় ভূখণ্ডে ঢোকার চেষ্টা করেছিল পিপলস লিবারেশন আর্মি। চিনা সেনার অনুপ্রবেশের চেষ্টায় বাধা দেয় ভারতীয় সেনার জওয়ানরা। সেদিন বৈঠকের নামে ভারতীয় সেনার উপর কাপুরুষোচিত হামলা করেছিল চিনা সেনা। পেরেক লাগানো অদ্ভুত অস্ত্র দিয়ে ভারতীয় জওয়ানদের উপর হামলা চালায় তাঁরা। ক্রমাগত পাথর, ইঁট ছোড়া হয়েছিল চিন সেনাদের তরফে। শহিদ হন ভারতীয় সেনার ২০ জন জওয়ান।

- Advertisement -

সরকার সূত্র খবর, ‘কর্নেল সন্তোষ বাবু সহ একাধিক সেনাকর্মীরা গালওয়ান ভ্যালিতে দেশের সীমান্ত রক্ষার সময় প্রভূত সাহসিকতার পরিচয় রেখেছিলেন। তাদের সেই বলিদানকে সম্মানিত করা হবে প্রজাতন্ত্র দিবসের দিন।’ এদিন প্রজাতন্ত্র দিবসের মহড়ার মাঝে পুরস্কার প্রদানের বিষয়টিতে সিলমোহর পড়তে দেখা গিয়েছে।