ভারত-চিন সংঘর্ষ সিকিমের নাকু লা-তে

286
ফাইল ছবি।

লেহ: ফের ভারত-চিন সংঘর্ষে উত্তপ্ত উত্তর সিকিমের নাকু লা। তিন দিন আগে ভারত-চিন সেনার মধ্যে সংঘর্ষে আহত হয়েছেন ১৫ থেকে ২০ জন চিনা জওয়ান।  অন্যদিকে ভারতের ৪ জন সেনা আহত হয়েছেন।

সূত্রের খবর, চিনা সেনারা সিকিমে প্রকৃত নিয়ন্ত্রণ রেখা অতিক্রম করার চেষ্টা করলে বাধা দেয় ভারতীয় জওয়ানরা। এরপরেই সংঘর্ষ বেধে যায়। সমুদ্রপৃষ্ঠ থেকে প্রায় ৫ হাজার মিটার উপরে দুই সেনার মধ্যে সংঘর্ষ বাধে। খুব শীঘ্রই ভারতীয় সেনার তরফে বিবৃতি দেওয়া হবে বলে জানা গিয়েছে। বর্তমানে পরিস্থিতি থমথমে রয়েছে। গত ২০ জানুয়ারি এই ঘটনা ঘটলেও আজ, সোমবার তা প্রকাশ্যে এসেছে৷ লাদাখে অচলাবস্থা কাটাতে ভারত এবং চিনের সেনার মধ্যে নবম দফার বৈঠকের আগেই নতুন করে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটল৷ তবে সংঘর্ষে কোনও রকম অস্ত্রের ব্যবহার হয়নি৷ ভারতীয়দের বাধা পেয়ে বাধ্য হয়ে পিছিয়ে যায় চিনা বাহিনী৷ সংখ্যায় বেশি থাকায় ভারতীয় সেনার আহতের সংখ্যাও কম৷ তুলনায় বেশি সংখ্যক চিনা সেনা আহত হয়েছেন৷ তবে কারও আঘাতই গুরুতর নয়৷ গোটা সংঘাতের প্রক্রিয়া প্রায় ১৫ ঘণ্টা স্থায়ী হয়েছিল৷

- Advertisement -

এই নিয়ে পূর্ব সেক্টরে দ্বিতীয় বার এক বছরে দুই দেশের মধ্যে হাতাহাতি হল। গত বছর মে মাসে নাকু লা-তে সংঘর্ষ হয়। আহত হয় দুই পক্ষের সেনা। সেখানে দুই দেশের সেনার মধ্যে গত দশ মাস ধরে অচলাবস্থা চলছে। এর মধ্যে ১৫ জুন গালওয়ান সংঘর্ষে ভারত এবং চিন উভয় পক্ষেরই বহু সেনার মৃত্যু হয়। তারপরেও এক-দুইবার সংঘর্ষ হয়েছে সেনাদের মধ্যে। বর্তমানে মারাত্মক শীত উপেক্ষা করেও লাদাখে প্রকৃত নিয়ন্ত্রণ রেখায় নিজেদের অবস্থান ধরে রেখেছে দুই দেশের সেনা। দফায় দফায় কূটনৈতিক ও সামরিক স্তরে আলোচনা করেও সমাধানসূত্র পাওয়া যায় নি। এবার নাকুলা-তে নতুন করে সংঘর্ষে জড়াল দুই দেশের সেনা।