ফুচকা খেয়ে সংক্রমণ, অসুস্থ প্রায় ৭০

196
ছবি: সংগৃহীত

মুর্শিদাবাদ: ফুচকা খেয়ে অসুস্থ হয়ে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন শিশু সহ প্রায় ৭০ জন। তাদের প্রত্যেকেই ইসলামপুর গ্রামীণ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। ঘটনাটি ঘটেছে মঙ্গলবার রাতে মুর্শিদাবাদের দমকলের ইসলামপুরের কাসেমনগর এলাকাতে। ঘটনায় এলাকায় রীতিমতো চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে। যদিও তাদের প্রত্যেকের অবস্থা বর্তমানে স্থিতিশীল বলে জানিয়েছেন মুর্শিদাবাদ জেলার মুখ্য স্বাস্থ্য আধিকারিক ডাঃ সন্দীপ সান্যাল। ঘটনার পর লালন শেখ নামে ওই ফুচকা বিক্রেতাকে আটক করেছে ইসলামপুর থানার পুলিশ। প্রতিদিনের মতো এলাকাতে ফুচকা বিক্রি করতে আসে লালন শেখ। মঙ্গলবার সন্ধ্যায় তার ফুচকা খাবার পর অনেকে পেটে ব্যথা অনুভব করে। রাতের দিকে বিষয়টিতে সবাই সেরকমভাবে গুরুত্ব না দিলেও বুধবার সকাল পর্যন্ত ব্যাথা না কমলে সবাই আসে হাসপাতালে। সেখানে রোগীদের সঙ্গে কথা বলে চিকিৎসকরা জানতে পারেন অসুস্থদের মধ্যে প্রায় সবাই ওই ফুচকা বিক্রেতার কাছ থেকেই ফুচকা খেয়েছে।

হাসপাতালে চিকিৎসাধীন এক রোগী সাকিনা খাতুন বলেন, ‘আমরা প্রায় দিন ওই দাদার কাছে ফুচকা খাই। কোনওদিন কোনও সমস্যা আমাদের হয়নি। হঠাৎ কেন এই অবস্থা হল আমরা বুঝে উঠতে পারছিনা।’ আরও এক রোগী সাইমুন শেখ বলেন, ‘লালনের এখানে কোনও দোষ নেই। এতদিন তো আমরা খাই কোনও কিছু হয়নি, হঠাৎ করে এই ঘটনা।’ এবিষয়ে মুর্শিদাবাদ জেলার মুখ্য স্বাস্থ্য আধিকারিক ডাঃ সন্দীপ সান্যাল জানিয়েছেন, বিষয়টি আমাদের নজরে আছে। প্রত্যেকের অবস্থা বর্তমানে স্থিতিশীল। গ্রামে আমাদের কর্মীরা আছেন। খোঁজ নেওয়া হচ্ছে এই ধরণের কোনও সমস্যা আর কারও আছে কিনা। ফুচকার জল ও খাবার পরীক্ষার জন্য পাঠানো হয়েছে।’

- Advertisement -