কলকাতা, ১৩ জুন : তাঁকে কেন্দ্র করেই উত্তাল সারা রাজ্য। সকলেই খোঁজ নিচ্ছেন কেমন আছেন ইঁটের ঘায়ে মৃত্যুমুখে চলে যাওয়া এনআরএসের ইন্টার্ন পরিবহ মুখোপাধ্য়ায়। অবশেষে নিজেই জানালেন, ভালো আছেন। অস্ত্রোপচারের পর উঠে বসেছেন হাওড়ার ডোমজুড়ের বছর ছাব্বিশের ওই তরুণ। নিজের হাতে খাবারও খাচ্ছেন। তবে এখনও চিকিত্সকদের পর্যবেক্ষণে রয়েছেন পরিবহ।

সোমবার রাতে উন্মত্ত জনতার ছোঁড়া ইঁট গিয়ে লাগে এনআরএসের ইন্টার্ন পরিবহ মুখোপাধ্যায়ের কপালে। হাড় ভেঙে ঢুকে যায় পরিবহের মস্তিষ্কে। মল্লিকবাজারের ইনস্টিটিউট অফ নিউরো সায়েন্সে ভরতি করা হয় তাঁকে। মঙ্গলবার দুপুরে একবার অবস্থার অবনতি হয় তাঁর। তারপরেই কার্যত ক্ষোভে ফেটে পড়েছিল চিকিত্সক সমাজ। তবে তারপর থেকে ক্রমশ শারীরিক অবস্থার উন্নতি হয় পরিবহের। অস্ত্রোপচারের পর আপাতত বিপদ কেটে গিয়েছে বলে জানিয়েছেন চিকিত্সকরা। বুধবার রাতে সোশ্যাল মিডিয়ায় একটি ভিডিয়ো ছড়িয়ে পড়ে। তাতে দেখা যায় পরিবহ বলছেন, ‘ভালো আছি।’

তবে পরিবহের বিপদ কাটলেও বিচারের দাবিতে কর্মবিরতি চালিয়ে যাচ্ছেন চিকিত্সকরা। কেন তাঁদের বারবার আক্রমণের শিকার হতে হবে, সেই প্রশ্ন তুলেছেন তাঁরা।