ভার্চুয়াল জগতে কেউই নিরাপদ নয়! ট্রু কলার সহ নানা অ্যাপ বিভিন্ন সময়ে বিষয়টি প্রকাশ্যে এনেছে। এমনিই দেখতে সাদামাটা হলেও, ব্যাবহারকারির তথ্য ফাঁস করতে বড়ো ভূমিকা নেয় কিছু অ্যাপ। তবে এদের রুখতে চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে গুগল। সম্প্রতি এমন ৭টি অ্যাপ  প্লে স্টোর থেকে বাদ দিয়েছে গুগল। অ্যাপগুলি মূলত শিশুসুরক্ষা, চুরি হওয়া ফোন খোঁজা বা এই ধরণের কাজের কথা বললেও আদতে ব্যাবহারকারির উপর নজরদারির জন্য ব্যবহার করা হতো। এক্ষেত্রে অ্যাপটি নিশানা করতো ব্যাবহারকারির অবস্থান, মেসেজ, ফোনের আসা-যাওয়া বা কন্ট্যাক্ট লিস্টকে। একটি আন্টি-ভাইরাস নির্মাতা কোম্পানির অভিযোগের ভিত্তিতে এই পদক্ষেপ করেছে গুগল। ওই কোম্পানি  সূত্রে জানা গিয়েছে, ওই অ্যাপগুলির  প্রতিটির পেছনে মূলত রাশিয়ান ডেভলপাররা রয়েছে। এই অ্যাপগুলির কোনো লোগো বা আইকন না থাকায় ফোন ইনস্টল করলেও ধরা সম্ভব নয়। কোনোভাবে ইনস্টল করা গেলেই এই আপা ওই ফোনের যাবতীয় তথ্য চুরি করে অ্যাপের্ সার্ভারে পাঠিয়ে দেয়।  এরপর যে নজরদারি করছে, সে ওই সার্ভারে গিয়ে ওই তথ্য দেখতে পারেন। তবে প্লে স্টোর থেকে অ্যাপগুলি  বাদ দিলেই সমস্যা মিতে যাবে এমনটা নয়।  ইতিমধ্যে ওই অ্যাপগুলি সব মিলিয়ে ১ লক্ষ ৩০ হাজার বার ডাউনলোড করে হয়েছে। তাই কোনো অ্যাপ ডাউনলোড করার ক্ষেত্রে ব্যাবহারকারকে আরও সাবধানী হওয়ার পরামর্শ দিচ্ছে ওই আন্টি-ভাইরাস নির্মাতা কোম্পানিটি।