জয়ের চাবিকাঠির সন্ধানে লোকেশ, ওয়ার্নার

চেন্নাই : তিন ম্যাচে জয় মাত্র একটিতে। অপর দলের শূন্য।

এমনই পরিসংখ্যানকে সঙ্গী করে বুধবার মুখোমুখি লড়াইয়ে নামছে পঞ্জাব কিংস-সানরাইজার্স হায়দরাবাদ। লিগ টেবিলের তলানিতে দুই দল। পয়েন্ট তালিকায় উপরে উঠতে বুধবারের ম্যাচকে পাখির চোখ করছে পঞ্জাব-হায়দরাবাদ দুই শিবির।

- Advertisement -

কেকেআর, আরসিবি ও মুম্বই ইন্ডিয়ান্স তিন ম্যাচে সূর্যোদয়ের আগে সূর্যাস্ত ঘটেছে হায়দরাবাদের। হারের হ্যাটট্রিকের কারণ হিসেবে উঠে আসছে দলের ব্যাটিং ব্যর্থতা। অধিনয়াক ডেভিড ওয়ার্নার কিংবা জনি বেয়ারস্টো আক্রমণাত্মক শুরু করেও খেই হারাচ্ছেন। ফর্ম হাতড়াচ্ছেন মণীশ পান্ডের মতো চেনা মুখ।

বুধবার চিপকে লোকেশ রাহুলের পঞ্জাব কিংসের বিরুদ্ধে জয়ে ফিরতে মরিয়া ওয়ার্নার-ব্রিগেড প্রথম এগারোয় পরিবর্তনের ভাবনায়। চলতি আইপিএলে প্রথমবার মাঠে নামতে পারেন কেন উইলিয়ামসন। তবে ফিটনেস ইস্যু এখনও চিন্তায় রেখেছে কিউয়ি ক্যাপ্টেনকে। প্রথম দুম্যাচে ব্যাটিং ব্যর্থতায় রোহিত শর্মাদের বিরুদ্ধে বাইরে বসতে হয়ছিল ঋদ্ধিমান সাহাকে। যদিও হারের ছবিটা তাতে বদলায়নি। তবে ক্রিস গেইলদের বিরুদ্ধে বাঙালি উইকেটরক্ষকের ফেরার সম্ভাবনা ক্ষীণ। কিপিং গ্লাভস থাকতে পারে বেয়ারস্টোর হাতেই। তবে মিডল অর্ডারের ব্যাটিংকে পোক্ত করতে দলে ঢুকতে পারেন অভিজ্ঞ কেদার যাদব।

দলের বোলিংও কাঁটা ওয়ার্নারের। চেনা ফর্মে এখনও দেখা যায়নি ভুবনেশ্বর কুমারকে। তবে রশিদ খান রয়েছেন। ম্যাচের রঙ বদলে দিতে পারেন। সঙ্গে ভরসা জাতীয় দলে তাঁর সতীর্থ মুজিব উর রহমান। মুম্বই ম্যাচে বল হাতে নজর কেড়েছেন এই আফগান তারকা।

প্রতিপক্ষ পঞ্জাব কিংসের ছবিটাও প্রায় একই রকম। হারের হ্যাটট্রিকের সামনে দাঁড়িয়ে প্রীতি জিন্টার দল। সিএসকে ম্যাচ বাদ দিলে ব্যাট হাতে পারফর্ম করেছে কিংসের ব্যাটিং লাইনআপ। ফর্মে আছেন অধিনায়ক কেএল রাহুল, ক্রিস গেইল। ফর্মে ফিরেছেন মায়াঙ্ক আগরওয়ালও। তবে ব্যাটিং ক্লিক করলেও প্রথম ম্যাচ বাদ দিলে বোলিংয়ের ঝাঁঝ উধাও। সেটাই সানরাইজার্সের বিরুদ্ধে চিন্তায় রাখবে কিংস শিবিরকে। চেনা ছন্দে নেই মহম্মদ সামি। বিদেশিদের মধ্যে ঝে রিচার্ডসন, রিলে মেরেডিথ জলের মতো রান খরচ করছেন। প্রাপ্তি বলতে অর্শদীপ সিংয়ের বোলিং।

হারের ফাঁদে আটকে পড়া দুই শিবিরই এখন জয়ের খোঁজে। জয়ের চাবিকাঠি কে খুঁজে পায়, লোকেশ নাকি ওয়ার্নার সেটাই এখন দেখার।