স্ত্রীকে মারধরের ভিডিয়ো ভাইরাল, চাকরি গেল পুলিশ কর্তার

759

ভুপাল : কানা ছেলের নাম পদ্মলোচন। বধূ নির্যাতনে অভিযুক্ত পুলিশ আধিকারিকের নাম পুরুষোত্তম! মধ্যপ্রদেশ পুলিশের অতিরিক্ত ডিরেক্টর জেনারেল পুরুষোত্তম শর্মার কুকীর্তি ফাঁস হতেই তাঁর চাকরি গিয়েছে। দোষী পুলিশ অফিসারের কড়া শাস্তির সুপারিশ করে রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী শিবরাজ সিং চৌহানকে চিঠি লিখেছেন জাতীয় মহিলা কমিশনের চেয়ারপার্সন রেখা শর্মা। মুখ্যমন্ত্রী বলেছেন, সরকারি আধিকারিকরা যদি বেআইনি কাজ করেন এবং আইন নিজেদের হাতে তুলে নেন, তাহলে তিনি যেই হন, শাস্তি পেতে হবে। যদিও পুরুষোত্তম শর্মা যাবতীয় অভিযোগ অস্বীকার করে জানিয়েছেন, এটা নিছক দাম্পত্য কলহ ছাড়া কিছু নয়। তাঁকে ফাঁসাতে রং চড়িয়ে ঘটনাটি প্রচার করা হয়েছে। অভিযোগের মূলে যে ভিডিও, তাতে দেখা গিয়েছে, পুরুষোত্তম শর্মা তাঁর স্ত্রীকে মাটিতে আছড়ে ফেলে প্রহার করছেন। স্ত্রী তারস্বরে চিৎকার করে সাহায্য চাইছেন নিরাপত্তারক্ষীদের কাছে। এক পুলিশ কর্মীকে দেখা যাচ্ছে দূরে অসহায়ভাবে দাঁড়িয়ে থাকতে। ওই ঘটনার সময় বাড়িতে পোষা একটি কুকুরকে চিৎকার করে এদিক সেদিক ঘুরতে দেখা যায়। এরকম ভয়াবহ গার্হস্থ্য হিংসার ছবি ভাইরাল হতেই সোমবার ওই পুলিশ আধিকারিককে বরখাস্ত করা হয়। তবে গ্রেপ্তার করা হয়নি তাঁকে।

স্ত্রীকে মারধরের ভিডিয়ো ভাইরাল, চাকরি গেল পুলিশ কর্তার| Uttarbanga Sambad | Latest Bengali News | বাংলা সংবাদ, বাংলা খবর | Live Breaking News North Bengal | COVID-19 Latest Report From Northbengal West Bengal India২০০৮ সালেও ওই পুলিশ কর্তার বিরুদ্ধে নির্যাতনের অভিযোগ করেছিলেন তাঁর স্ত্রী। অভিযোগ, স্ত্রীকে নিয়মিত মারধর করার অভ্যেস আছে ওই পুলিশ আধিকারিকের। সম্প্রতি অন্য এক মহিলার সঙ্গে স্বামীকে আপত্তিকর অবস্থায় দেখার পর স্ত্রী আর স্থির থাকতে পারেননি। অভিযোগ জানান সংশ্লিষ্ট মহলে। কিন্তু নিজেকে নির্দোষ বলে দাবি করে ১৯৮৬-র ব্যাচের আইপিএস অফিসার পুরুষোত্তম বলেন, ৩২ বছর ধরে তাঁরা দাম্পত্য জীবন উপভোগ করছেন। তাঁর বক্তব্য, স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে এমন ছোটখাটো বিবাদ সব পরিবারেই হয়। ঘটনাটাকে বাড়িয়ে দেখানো হচ্ছে। পিছন থেকে জাপটে ধরে মাটিতে ফেলে চুলের মুঠি ধরে মারার ছবি সত্যি কিনা জানতে চাইলে তিনি বলেন, তাঁকে ফাঁদে ফেলার জন্য স্ত্রী ঘরের মধ্যে গোপনে ক্যামেরা লাগিয়ে রেখেছিলেন। স্ত্রী তাঁর বাড়িতে থাকেন, তাঁর পয়সায় খান, ফুর্তি করেন। এমনকি বিদেশ ভ্রমণের খরচও তিনিই জোগান স্ত্রীকে। ভিডিওটা জাল বলেও ইঙ্গিত করেছেন তিনি। রাজ্যের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী নরোত্তম মিশ্র বলেন, আমি ভিডিওটা দেখেছি। যথাযোগ্য ব্যবস্থা নেওয়া হবে। পুরুষোত্তমের সাফাই শুনে ক্ষুব্ধ শিবসেনার মুখপাত্র প্রিয়াঙ্কা চতুর্বেদী বলেন, এটাই পুরুষতান্ত্রিক মনোবৃত্তি। স্ত্রীর ভরণপোষণ করেন বলে পুরুষোত্তমরা ধরেই নেন যে স্ত্রী তাঁদের সম্পত্তি। স্ত্রীর সঙ্গে যেমন খুশি ব্যবহার করা যায়।

- Advertisement -