জর্জিনহো-ভেরাত্তি প্রথম একাদশে থাকুক

Italian defender Gianluca Zambrotta

জিয়ানলুকা জামব্রোতা : নকআউটে চলে এসেছে আমার দেশ ইতালি। এবার আমাদের প্রতিপক্ষ অস্ট্রিয়া। ওর এবারই প্রথম ইউরোর নকআউটে খেলবে। গ্রুপে ওদের তেমন লড়াই করতে হয়নি। তবে আমরা দেখেছি যে ওরা শারীরির দিক দিয়ে শক্তিশালী। পাশাপাশি প্রয়োজনে ওরা দ্রুত স্ট্র‌্যাটেজি বদলে ফেলে। আর যে দলে ডেভিড আলাবা ও মার্সেল সবিটেরের মতো ফুটবলার আছে, তাদের হাল্কাভাবে নেওয়ার প্রশ্নই নেই।

অবশ্য টেকনিক্যালি অস্ট্রিয়া আমাদের ধারেকাছেও নেই। ফলে ওরা আমাদের বিরুদ্ধে ডিফেন্স আঁটোসাটো করে কাউন্টার অ্যাটাকের স্ট্র‌্যাটেজি নেবে, তা স্পষ্ট। অস্ট্রিয়া প্রেসিং ফুটবলের রাস্তার হাঁটবে না, তবে উইং থেকে ভেসে আসা ক্রস নিয়ে আমাদের সাবধানে থাকতে হবে। কারণ এবারের ইউরোয় অধিকাংশ গোল এভাবেই করেছে ওরা।

- Advertisement -

এই ধরণের ম্যাচে আমি মার্কো ভেরাত্তি আর জর্জিনহোকে একসঙ্গে মাঝমাঠে খেলানোর পক্ষে। ম্যানুয়েল লোকাতেলির ফর্ম মাথায় রেখেই বলছি, ফিট ভেরাত্তি অনেক এগিয়ে। দেশের হয়ে খেলার ক্ষেত্রে ভেরাত্তির অভিজ্ঞতা বেশি। রবার্তো মানচিনি ভেরাত্তি ও জর্জিনহোকে একসঙ্গে রাখলে নিকোলা বেরেলা আরও খোলামনে আক্রমণে ঝাঁপাতে পারবে। তবে এটা সত্যি, লোকাতেলি ইউরোয় দুর্দান্ত পারফর্ম করছে।

তবে আমি ফরোয়ার্ড লাইনে কোনও বদল চাইব না। ডানদিকে ডমিনিকো বেরার্দি, মাঝে সিরো ইম্মোবিলে আর বাঁ প্রান্তে লরেঞ্জো ইনসাইনে। বেরার্দি অনেকটা নেমে এসে ক্রস তোলে, আবার মাঝখান থেকে ঢুকে বাকি দুজনের সঙ্গে তাল মিলিয়ে আক্রমণে যায়। এছাড়া লিওনার্দো স্পিনাজোলাও আক্রমণে সাহায্য করে।

আমার মতে, ফ্রেডরিকো চিয়েসা পরিবর্ত হিসেবে কার্যকর হতে পারে। আসলে মানচিনির হাতে প্রচুর বিকল্প আছে। পাশাপাশি ওয়েম্বলির মতো ঐতিহাসিক স্টেডিয়ামে খেলাটাই ফুটবলারদের বাড়তি অনুপ্রেরণা দেবে।

(উয়েফার ওয়েসাইটে প্রকাশিত কলাম)