মেসিকে ঘিরেই পারদ চড়ছে এল ক্লাসিকোর

মাদ্রিদ : রাঙিয়ে দিয়ে যাও, যাও গো এবার যাবার আগে।

শনিবার রাতে এল ক্লাসিকোর সঙ্গে রাবীন্দ্রিক যোগ নেহাতই কাকতালীয়। কিন্তু বিশ্ব ফুটবলের সেরা মহারণে যেখানে আলোচনার কেন্দ্রে মূলত লিওনেল মেসি নামক ফুটবল নক্ষত্র। সেখানে, যাওয়ার আগে রাঙিয়ে দেওয়ার অনুরোধ অপ্রাসঙ্গিক নয়।

- Advertisement -

চলতি মরশুম শেষে কি বার্সেলোনা ছাড়ছেন মেসি? গুঞ্জন ডালপালা মেলেছিল অনেক আগেই। তারপর কাতালান ক্লাবে বিস্তর পালাবদল দেখেছে বার্সেলোনার সমর্থকরা। কিন্তু সেই গুঞ্জন হাওয়ায় মিলিয়ে যায়নি। বার্সায় লাপোর্তা-যুগ শুরুর পরেও নতুন চুক্তির বিষয়ে এখনও নিশ্চুপ মেসি। জল দাঁড়িয়ে একই জায়গায়। আর সেটাই চিন্তা বাড়িয়েছে বার্সা সমর্থকদের। তাদের সেই আশঙ্কা সত্যি প্রমাণ হলে শনিবাসরীয় দ্বৈরথ হতে চলেছে লিওনেল আন্দ্রেস মেসির কেরিয়ারের শেষ এল ক্লাসিকো।

লা লিগায় এল ক্লাসিকো মানেই মেসি-রোনাল্ডো ডুয়েল। সেই নস্টালজিয়ায় দাঁড়ি পড়ে গিয়েছে ২০১৮-তে। চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী জুভেন্তাসের জার্সি গায়ে চাপানোয় একা হয়েছেন মেসি। আর তাতে জৌলুস কমেছে এল ক্লাসিকোর। রোনাল্ডোর অনুপস্থিতি মেসির গোলের খিদে কমিয়ে দিয়েছে কি না সেটাও তাৎপর্যপূর্ণ বিষয়। রোনাল্ডো চলে যাওয়ার পর এল ক্লাসিকোয় মেসির নামের পাশে গোলসংখ্যা ০! অথচ কেরিয়ারে রিয়াল মাদ্রিদের বিরুদ্ধে প্রথম ২৭ ম্যাচে আর্জেন্টাইন তারকা গোল করেছেন ২১।  সেখানে শেষ ১৭টি এল ক্লাসিকোয় মেসির পা থেকে গোল এসেছে মাত্র পাঁচটি।

তবে অতীত দিয়ে বড় ম্যাচের ভাগ্য নির্ধারণ চলে না। মেসির তো নয়ই। চলতি লা লিগায় ইতিমধ্যে ২৩ গোল করে ফেলেছেন এলএম টেন। সেটা মাথায় রেখেই মহারণে নামার আগে মেসি-বন্দনায় মাতলেন রিয়াল তারকা করিম বেঞ্জিমা। বললেন, বার্সেলোনা প্রতিপক্ষ হিসেবে সবসময় শক্তিশালী। আর সেটা মেসির জন্য তো বটেই। মেসি সেই ফুটবলার যে বার্সার জন্য সবকিছু করেছে। তাই এমন ভয়ংকর প্রতিপক্ষের বিরুদ্ধে সতর্ক থাকতেই হবে। একই কথার প্রতিধ্বনি জিদানের গলাতেও। রিয়াল কোচ বলেন, মেসি কে তা আমরা জানি। মেসি গোল না পেলেও জেতার ক্ষমতা রয়েছে বার্সেলোনার। আমাদের লড়াই তাদের বিরুদ্ধে।