সামনেই কালীপুজো, ১০ হাজার টাকায় বিক্রি হচ্ছে পাঁঠা

84

বুনিয়াদপুর: সামনেই কালীপুজো। সারা দেশের পাশাপাশি বংশীহারির বিভিন্ন এলাকায় ইতিমধ্যেই শুরু হয়েছে পূজার প্রস্তুতি। তাই পুজো কমিটিগুলোর ব্যস্ততা এখন তুঙ্গে। বুনিয়াদপুর পুরসভা সহ বংশীহারি ব্লকে ছোট-বড় ২০০টি কালীপুজো প্রতিবছর অনুষ্ঠিত হয়। বেশিরভাগ কালীপুজোয় পাঁঠাবলির প্রচলন আছে। এলাকার পশুহাটগুলির মধ্যে অন্যতম সরারহাট। এলাকার সবচেয়ে বড় হাট বসে এখানে। কালীপুজো উপলক্ষ্যে মঙ্গলবার সকালে দূরদূরান্ত থেকে বিক্রেতারা পাঁঠা নিয়ে আসেন এই হাটে কেনাবেচা করতে। এদিন সকাল থেকে তিল ধারণের জায়গা ছিল না সেখানে। কালীপূজা উপলক্ষ্যে পাঁঠার দামও ছিল আকাশছোঁয়া। ২০০০ টাকা থেকে শুরু করে ১০ হাজার টাকায় পাঁঠা বিক্রি হয় এদিন। গঙ্গারামপুর সুকদেবপুর থেকে আসা এক বিক্রেতা জানান, গত বছর করোনা আবহে খদ্দের কম থাকায় পাঁঠার দাম সেইভাবে মেলেনি। এবার পরিস্থিতি কিছুটা স্বাভাবিক হতেই ভালো দাম পাওয়া গেছে।