সন্তান পেতে শিশুকন্যাকে বলি

871

কানপুর: সন্তান পেতে বলি দেওয়া হল সাত বছরের এক শিশুকন্যাকে! তার শরীর থেকে বের করে নেওয়া হল পাকস্থলী! নৃশংস এই ঘটনাটি ঘটেছে উত্তরপ্রদেশের কানপুরে। পুলিশ জানিয়েছে, রবিবার সকালে শিশুটির দেহ উদ্ধার হয়। মেয়েটিকে ধর্ষণেরও চেষ্টা করা হয়েছিল বলে অনুমান করা হচ্ছে। অভিযুক্ত চারজনকেই গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

পুলিশ জানিয়েছে, মৃত মেয়েটির গ্রামেরই এক নিঃসন্তান দম্পতি তাদের দুই প্রতিবেশীকে এক হাজার টাকা দিয়েছিল। ওই দম্পতির কোলে সন্তান এনে দেওয়ার নাম করে দুই প্রতিবেশী ধর্মীয় আচারের জন্য অপহরণ করে মেয়েটিকে। অভিযোগ, শনিবার রাতে মেয়েটিকে অপহরণ করা হয়। দুই অভিযুক্ত প্রথমে মদ্যপান করে মেয়েটিকে ধর্ষণের চেষ্টা করে। এরপর খুন করা হয় তাকে। এমনকি, তারা শিশুটির শরীর থেকে পাকস্থলী খুলে বের করে নেয়। প্রথার নামে পরে সেই পাকস্থলী নিঃসন্তান দম্পতির হাতে তুলে দেয় অভিযুক্তরা।

- Advertisement -

এক শীর্ষ পুলিশকর্তা ব্রজেশ শ্রীবাস্তব জানিয়েছেন, এই মামলার তদন্তে পুলিশের বেশ কয়েকটি দল তৈরি করা হয়েছিল। সন্দেহের বশে মেয়েটির প্রতিবেশী অংকুর ও বীরানকে আটক করা হয়। জেরার মুখে দোষ স্বীকার করে নেয় তারা। তারা জানিয়েছে, পরশুরাম নামে এক ব্যক্তি, যে অংকুরের মামা, সে এই কাজের জন্য তাদেরকে কিছু টাকা দিয়েছিল। দুজনেই মদ্যপ অবস্থায় মেয়েটিকে ধর্ষণের চেষ্টা করে। এরপর মেয়েটিকে মেরে তার পাকস্থলী খুলে বের করে নিয়ে পরশুরামকে দিয়ে দেয় সে।

এই ঘটনায় অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে কড়া ব্যবস্থা নেওয়ার নির্দেশ দেন উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ। মৃতার পরিবারকে ৫ লক্ষ টাকা ক্ষতিপূরণ দেওয়ার কথাও ঘোষণা করেন তিনি। দোষীর যাতে দ্রুত শাস্তি হয়, সে জন্য এই মামলার শুনানি ফার্স্ট ট্র্যাক কোর্টে হবে বলে জানিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী।