আইপিএল ঘরোয়া ক্রিকেটের মান বাড়িয়েছে, বলছেন হর্ষল

নয়াদিল্লি : আইপিএলের হাত ধরে আন্তর্জাতিক স্তরের সমতুল্য হয়ে উঠেছেন ঘরোয়া ক্রিকেটে অংশগ্রহণকারীরা। এমনটাই মত রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোরের তারকা পেসার হর্ষল প্যাটেলের।

এখনও আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের স্বাদ পাননি। তবে হর্ষলের কথায়, ঘরোয়া এবং আন্তর্জাতিক স্তরের ক্রিকেটারদের পার্থক্য আইপিএলের জন্য কমেছে। আইপিএলে আমাদের উপর যে চাপ থাকে, তা আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের সমতুল্য। এমনকি আমি কয়েকজনের মুখে শুনেছি, আইপিএলে বল করা বেশি চাপের। অবশ্য আমি আন্তর্জাতিক মঞ্চে খেলিনি, তাই ব্যক্তিগত কোনও অভিজ্ঞতা নেই। তবে এমন পরিস্থিতিতে খেলার অভিজ্ঞতা এবং এসময়ে মাথা ঠাণ্ডা রাখার ক্ষমতা থাকলে সর্বোচ্চ স্তরে মানিয়ে নিতে সমস্যা হবে না।

- Advertisement -

যশপ্রীত বুমরাহ, কাগিসো রাবাদা, মহম্মদ সামিদের পেছনে ফেলে আইপিএলের প্রথম পর্ব সর্বোচ্চ উইকেটশিকারী হিসেবে শেষ করেছেন হর্ষল। এ প্রসঙ্গে বলেছেন, আমি ওদের সঙ্গে নিজের তুলনা করতে চাই না। ওরা সবাই অসাধারণ। তবে আমি স্কিলের দিক থেকে খুব একটা পিছিয়ে নেই। এবছর আমি চাপের মুখে ভালো পারফর্ম করেছি। করোনার জন্য আইপিএল স্থগিত হওয়ার আগে ৮ ম্যাচে ১৪ উইকেট নিয়েছেন তিনি। প্রথম ম্যাচে মুম্বই ইন্ডিয়ান্সের বিরুদ্ধে এসেছে ৫ শিকার।

নিলামে ব্যাঙ্গালোর তাঁকে দলে নেওয়ার পরই বিরাট কোহলি মেসেজ করেন তাঁকে। এ প্রসঙ্গে হর্ষল বলেছেন, বিরাটভাই আমাকে মেসেজে লেখেন, ওয়েলকাম ব্যাক, তুমি আবার আমাদের সঙ্গে খেলবে। এই মেসেজ আমার আত্মবিশ্বাস বাড়িয়েছে। অধিনায়ক হিসেবে তিনি আমাকে বোলিংয়ে স্বাধীনতা দিয়েছেন। এমনকি খারাপ বল করলেও সহানুভূতি দেখিয়েছেন। দলে কোনও এক ম্যাচের পারফরমেন্সের বদলে সামগ্রিক পরিস্থিতির দিকে নজর দেওয়া হয়। এটা আমাদের মনসংযোগ ঠিক রাখতে সাহায্য করেছে।

পরবর্তীতে নিজের বোলিংকে আরও ধারালো করার দিকে নজর দিচ্ছেন হর্ষল। তাঁর আশা, সেপ্টেম্বরে আইপিএলের বাকি ম্যাচগুলি হবে। সেই জন্য নিজেকে তৈরি রাখতে মরিয়া তিনি।