বুধেই শেষ দুই কক্ষের বাদল অধিবেশন

325

নিউজ ডেস্ক: করোনা ভাইরাসের প্রভাবে আবিশ্ব নাজেহাল। এই পরিস্থিতির মধ্যে বুধবার ৯ সেপ্টেম্বর ও বৃহস্পতিবার ১০ সেপ্টেম্বর; এই দুই দিনে বিশেষ অধিবেশন অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা ছিল পশ্চিমবঙ্গ বিধানসভার পাশাপাশি লোকসভায়। কিন্তু সেটি কমে দাঁড়াল একদিনে। অন্যদিকে, মন্ত্রীসভায় পাশ হওয়া ১১ টি গুরুত্বপূর্ণ অর্ডিন্যান্স সায় দিয়েছে সংসদের দুই কক্ষই।

জানা গিয়েছে, পশ্চিমবঙ্গ বিধানসভায় ৮ জন কোভিড পজিটিভ ধরা পড়েছে। আর সেকারণেই আজই শেষ হবে এই মরশুমের বাদল অধিবেশন। মঙ্গলবার সর্বদল বৈঠক শেষে এমনটাই জানিয়েছেন বিধানসভার অধ্যক্ষ বিমান বন্দ্যোপাধ্যায়।

- Advertisement -

এদিন পশ্চিমবঙ্গ বিধানসভার অধ্যক্ষ বিমান বাবু জানিয়েছেন, পূর্ব পরিকল্পনা অনুযায়ী মঙ্গলবার সকালে বিধায়ক, বিধানসভার কর্মী এবং সংবাদমাধ্যমের প্রতিনিধিরা মিলিয়ে মোট ৪৬৭ জনের র‌্যাপিড অ্যান্টিজেন পরীক্ষা করানো হয়। আর তার মধ্যে ৮ জনের কোভিড পজিটিভ ধরা পড়েছে। মূলত এ কারণেই দু’‌দিন থেকে কমিয়ে একদিনের মধ্যেই অধিবেশন মিটিয়ে ফেলার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। বুধবারও কয়েকজনের করোনা পরীক্ষা করানো হবে বলেও জানিয়েছেন তিনি।

অন্যদিকে সূত্রের খবর, ওই ৮ জন করোনা আক্রান্তের মধ্যে রয়েছেন ‌২ জন বিধানসভা কর্মী, ৪ জন পুলিশকর্মী, সংবাদমাধ্যমের এক প্রতিনিধি এবং এক গাড়িচালক। সে কথা মাথায় রেখে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার ব্যাপারেও চলবে কড়াকড়ি। স্যানিটাইজিং টানেলের মধ্যে দিয়ে ঢুকতে হবে বিধায়কদের। তাঁদের মাস্ক ও স্যানিটাইজারও দেওয়া হবে। বুধবার প্রথমার্ধে চলবে প্রস্তাব পর্ব।

জানা গিয়েছে, এদিনের অধিবেশনের দ্বিতীয়ার্ধে কোর্ট ফি সংশোধনী বিল আনা হবে। আর তা পাশ হয়ে গেলেই এবারের মতো মুলতবি হয়ে যাবে বিধানসভার বাদল অধিবেশন। পাশাপাশি, লোকসভায় দু’ঘণ্টার জিরো আওয়ার হবে। সেখানে সাংসদরা জরুরি বিষয় তুলে ধরতে পারেন। তারপরই সভা মুলতুবি করে দেওয়া হবে। একইভাবে উচ্চকক্ষে শ্রম সংক্রান্ত বিল পাশ হওয়ার পর সভা মুলতুবি করে দেওয়া হবে বলে সূত্রের খবর।