তুফানগঞ্জ, ৬ ডিসেম্বর: বৃহস্পতিবার রাজনৈতিক সংঘর্ষে উত্তপ্ত হয়ে উঠেছিল তুফানগঞ্জের মহিশকুচি-১ গ্রাম পঞ্চায়েতের শালডাঙ্গা। শুক্রবার শালডাঙ্গায় দলীয় কর্মীদের সাথে দেখা করলেন বিজেপির কোচবিহার জেলা সভানেত্রী মালতী রাভা। ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন তিনি। পরিদর্শন শেষে মালতি রাভা বলেন, ‘তৃণমূল আশ্রিত দুষ্কৃতী ও পুলিশ যৌথভাবে বিজেপি কর্মীদের উপর আক্রমণ করেছে। বিজেপি কর্মীদের বাড়িঘর ভাঙচুর চালিয়েছে। এমনকী মহিলাদের উপর মারধর করেছে পুলিশ। আমরা এই ধরনের ঘটনার তীব্র প্রতিবাদ জানাই।’ যদিও তৃণমূলের তুফানগঞ্জ-২ ব্লকের কো-কনভেনার সুরেশচন্দ্র বর্মন বলেন, ‘মালতিদেবী এলাকার শান্ত পরিবেশকে অশান্ত করে তোলার জন্য শালডাঙ্গায় এসেছেন। গতকাল তৃণমূল নয় বরং বিজেপি পুলিশের গাড়ি ও বিডিওর গাড়িতে ভাঙচুর চালিয়েছে। বিডিও-কে শারীরিকভাবে হেনস্থা করা হয়েছে। এখন মালতিদেবী ভিত্তিহীন অভিযোগ করছেন’। তুফানগঞ্জের মহকুমা পুলিশ আধিকারিক জ্যাম ইয়াং জিম্বা এই বিষয়ে কোনো মন্তব্য করতে চাননি।