অসহায় বৃদ্ধ-বৃদ্ধাদের পাশে এবার মালদা পুলিশ

139

গাজোল: ‘প্রণাম’ প্রকল্পের মাধ্যমে অসহায় বৃদ্ধ-বৃদ্ধাদের পাশে দাঁড়িয়েছে কলকাতা পুলিশ। এবার একইভাবে বৃদ্ধ-বৃদ্ধাদের পাশে দাঁড়ানোর উদ্যোগ নিল মালদা জেলা পুলিশও। বয়স্কদের হাল-হকিকত জানতে শনিবার সারাদিন ধরে গাজোলের বিভিন্ন এলাকায় যান ডিএসপি(ডি অ্যান্ড টি) আজহারউদ্দিন খান, গাজোল থানার আইসি পূর্ণেন্দু মুখোপাধ্যায়, এএসআই শুভেন্দু বিকাশ পতি সহ অন্যান্যরা।

এদিন গাজোল শহর ও গ্রামীণ এলাকা পরিদর্শন করেন পুলিশ আধিকারিকরা। বিভিন্ন এলাকায় গিয়ে বৃদ্ধ-বৃদ্ধাদের সঙ্গে কথা বলেন তাঁরা। শুধু বাড়ি নয়, বিভিন্ন দোকানে যে সমস্ত বয়স্ক মানুষ দোকানদারি করছেন তাঁদের সঙ্গেও কথা বলে পুলিশ। ওই বৃদ্ধ-বৃদ্ধাদের কাছ থেকে বিভিন্ন তথ্য সংগ্রহ করে নেন পুলিশ আধিকারিকরা। পরিবারে কে কে আছেন, পরিবারের অন্যান্য সদস্যরা তাঁদের সঙ্গে কী রকম ব্যবহার করছেন, অসুস্থ হলে ঠিকঠাকভাবে চিকিৎসা করা হচ্ছে কিনা, এইরকম বিভিন্ন বিষয় নিয়ে তাঁদের সঙ্গে কথা বলেন আধিকারিকরা। দ্বিতীয়ার্ধে গাজোলের বিভিন্ন গ্রামীণ এলাকায় যায় পুলিশ। গ্রামীণ এলাকার বয়স্ক মানুষদের সঙ্গে আলোচনা করে পুলিশ।

- Advertisement -

পুলিশের তরফে জানানো হয়, অনেক সময় পরিবারের বয়স্ক মানুষদের উপর অত্যাচারের অভিযোগ আসে পুলিশের কাছে। তবে তা খুবই সামান্য। বেশিরভাগ বৃদ্ধ-বৃদ্ধাই হয়তো অভিযোগ জানাতে থানা পর্যন্ত আসতে পারেন না। তাই এবার থেকে তাঁদের হাল-হকিকত জানার জন্য পুলিশের তরফে উদ্যোগ নেওয়া হচ্ছে। এছাড়াও দেখা যায়, অনেক বৃদ্ধ-বৃদ্ধার পরিবারে হয়তো কেউ নেই। তাঁদেরও সাধ্যমতো সাহায্য করবে পুলিশ। পাশাপাশি, এলাকার মানুষদের সঙ্গে কথা বলা হচ্ছে। বৃদ্ধ-বৃদ্ধারা কোনও অসুবিধায় পড়লে যে কেউ ১০০ ডায়াল করে বা থানার নম্বরে ফোন করে পুলিশকে খবর দিলেই সাহায্য করতে এগিয়ে আসবে তারা। এছাড়াও বিভিন্ন এলাকার সিভিক ভলান্টিয়াররাও আলাদা করে নজর রাখবেন বয়স্কদের ওপর। পুলিশের এই উদ্যোগে খুশি সাধারণ মানুষ।