হায়দরাবাদ, ১৬ মার্চঃ স্ত্রীর বিবাহবহির্ভূত সম্পর্কের কথা জেনে আত্মঘাতী স্বামী। তেলেঙ্গানার ইয়াদাদরি ভোঙ্গির জেলার শমীরপেটের ঘটনা। লিখে যান একটি সুইসাইডনোটও। সেখানে স্ত্রীর প্রেমিক চিনাম শ্রীকান্তের সঙ্গেই স্ত্রী ঊষা রানির বিয়ে দেওয়ার জন্য বাবা-মাকে অনুরোধ করেন বছর ২৪ এর কে আচার্য। স্ত্রীর বিবাহবহির্ভূত সম্পর্কের জন্য নিজের ব্যর্থতাকেই দায়ী করেন আচার্য। তাঁর আত্মহত্যার জন্য যাতে স্ত্রী বা শ্বশুর-শাশুড়িকে হেনস্থা না করা হয়, সেবিষয়েও অনুরোধ করেন তিনি।

জানা গিয়েছে, বছর দুয়েক আগে ইলেকট্রিশিয়ান কে আচার্যের সঙ্গে বিয়ে হয় ঊষা রানির। এক বছরের একটি মেয়েও রয়েছে তাঁদের। গত বুধবার আচার্য তাঁর বাবা কে সত্যনারায়ণকে একটি এসএমএস করে জানান যে তাঁর প্রতিবেশী শ্রীকান্তের জন্য তিনি আত্মহত্যা করতে বাধ্য হচ্ছেন। এই এসএমএস পাওয়ার পরই ছেলেকে একাধিকবার ফোন করেন সত্যনারায়ণ। তবে ফোন সুইচড অফ থাকায় তিনি তখনই ছেলের বাড়িতে যান। বাড়ির সিলিং ফ্যান থেকে আচার্যের ঝুলন্ত দেহ দেখতে পেয়ে পান বাবা। খবর দেওয়া হয় পুলিশে। সত্যনারায়ণের বয়ানের ভিত্তিতে একটি অস্বাভাবিক মৃত্যুর মামলা রুজু করা হয়েছে। ময়নাতদন্তের পর বৃহস্পতিবার পরিবারের হাতে দেহ হস্তান্তর করা হয়।