করোনা পরিস্থিতিতে অনিশ্চিত রপ্তানি, চিন্তায় আমচাষিরা

137

পুরাতন মালদা: আমের দৌলতেই মূলত মালদার জগৎজোড়া পরিচিতি। দেশের বাজারের পাশাপাশি বিদেশেও মালদার আমের যথেষ্ট চাহিদা রয়েছে। কিন্তু করোনা রুখতে বিধিনিষেধ জারি হওয়ায় এবার প্রশ্নের মুখে পড়েছে মালদার আম রপ্তানি। রাজ্য তথা ভিনরাজ্যেও বিধিনিষেধ বলবৎ থাকায় বাজার বন্ধ। অনিশ্চিত হয়ে পড়েছে পরিবহণও। স্বাভাবিকভাবেই আমের বাজার নিয়ে চিন্তার ভাঁজ চাষিদের কপালে।

মালদা জেলায় প্রায় ৩০,০০০ হেক্টর জমিতে আম চাষ হয়। জেলার কয়েকহাজার মানুষ এর সঙ্গে যুক্ত। জেলার অর্থনীতির অনেকটাই নির্ভর করে আমের ব্যবসার ওপর। এ বছর আমের ফলন ভালো হলেও চিন্তায় রয়েছেন মালদার আমচাষিরা। করোনার জন্য বিধিনিষেধ জারি হওয়ায় আম রপ্তানি নিয়ে দেখা দিয়েছে প্রশ্নচিহ্ন। পরিবহণ সমস্যার পাশাপাশি সংক্রমণের আশঙ্কায় রপ্তানিতে সমস্যা হতে পারে বলে আশঙ্কা চাষিদের। তড়িঘড়ি বাজার ধরতে ইতিমধ্যেই বহু চাষি গাছ থেকে আম পাড়তে শুরু করেছেন। লকডাউনের মধ্যে হিমসাগর, গোপালভোগের মতো আম যতটা পারা যায় বাজারজাত করার কাজ শুরু করেছেন অনেকেই।

- Advertisement -

বসির শেখ নামে এক আম ব্যবসায়ী বলেন, ‘লোন নিয়ে এবছর বেশ কয়েকটি বাগান কিনেছিলাম। আমের ফলনও ভালোই হয়েছিল। কিন্তু বিধিনিষেধ বলবৎ থাকায় বাজার মার খেতে পারে। অন্য রাজ্যেও লকডাউন থাকায় সেখানকার বাজারে আমের চাহিদা নেই। তাই এবছর আমরা লোকসানের আশঙ্কা করছি।‘ অমিত ঘোষ নামে এক আমচাষি বলেন, ‘এবছর আমের ফলন ভালো। কিন্তু বাজারই তো বন্ধ। কীভাবে আম বিক্রি হবে? আর্থিক ক্ষতির ভয় তো আছেই। গত বছরও লকডাউনে মার খেয়েছে ব্যবসা।‘