ট্রেনের বর্ধিত ভাড়া প্রত‍্যাহারের দাবিতে ময়নাগুড়ি নাগরিক চেতনার আন্দোলন

108

ময়নাগুড়ি: ট্রেনের বর্ধিত ভাড়া প্রত্যাহারের দাবিতে শুক্রবার ময়নাগুড়ি নাগরিক চেতনার তরফে অবস্থান বিক্ষোভ কর্মসূচি অনুষ্ঠিত হল।সংগঠনের সম্পাদক অপু রাউত জানান, বামনহাট প‍্যাসেঞ্জার পূর্বের ভাড়াতেই অবিলম্বে চালাতে হবে। সমস্ত এক্সপ্রেস ও মেল ট্রেনের বর্ধিত ভাড়া প্রত‍্যাহার করতে হবে এবং জেনারেল কামরা চালু করতে হবে। তিনি জানান, কেন্দ্রীয় সরকারের এই স্বেচ্ছাচারিতায় সাধারণ মানুষের প্রাণ এখন ওষ্ঠাগত। কিন্তু কোনও রাজনৈতিক দল এই বিষয়ে এগিয়ে আসছে না। অবস্থান বিক্ষোভে বক্তারা জানান, জলপাইগুড়ি টাউন থেকে এনজেপির ভাড়া ১০ টাকা থেকে বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৩৫ টাকা। রিজারভেশন বাধ‍্যতামূলক করে জেনারেল কামরা তুলে দেওয়া হয়েছে। ডুয়ার্সের একটি গুরুত্বপূর্ণ ট্রেন বামনহাট শিলিগুড়ি লোকাল লকডাউনের পর আর চালু করা হয়নি। তাঁদের দাবি, উত্তরবঙ্গের লোকাল ট্রেনের ভাড়া বাড়িয়ে দেওয়া হলেও কলকাতা এবং হাওড়া সেকশনে লোকাল ট্রেন আগের ভাড়াতেই চলছে।

আন্দোলনকারীরা জানান, লকডাউন পরবর্তী পরিস্থিতিতে সাধারণ মানুষ আর্থিক দিক থেকে বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছেন। তার মধ্যেই পেট্রোল, ডিজেল ও রান্নার গ‍্যাসের দাম প্রতিদিন বাড়ছে। বাড়ানো হয়েছে রেলের যাত্রী ভাড়াও। পাশাপাশি এদিন যোগীঘোপা রেল প্রকল্পে ময়নাগুড়িকে জংশন করার দাবিও জানানো হয়। অবিলম্বে ভাড়া প্রত্যাহার না হলে আগামীদিনে বৃহত্তর আন্দোলনে যাওয়ার হঁশিয়ারি দেওয়া হয়েছে। এই নিয়ে এদিন ময়নাগুড়ি রেলওয়ে স্টেশনে ডেপুটেশন দেওয়া হয়। নিউ ময়নাগুড়ি রেলওয়ে স্টেশন কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, দাবিপত্র ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের কাছে পাঠানো হবে। এদিন ময়নাগুড়ি ট্রাফিক মোড়ে নাগরিক চেতনার তরফে অবস্থান বিক্ষোভ কর্মসূচি অনুষ্ঠিত হয়। উপস্থিত ছিলেন সংগঠনের সভাপতি ধীরেন্দ্রচন্দ্র ঘোষ সহ আরও অনেকে।

- Advertisement -