কম্বল না মেলায় বিক্ষোভে শামিল বিশেষ চাহিদা সম্পন্নরা

107

আলিপুরদুয়ার: বিশেষভাবে সক্ষমদের কম্বল দেওয়ার কথা থাকলেও শীত শেষ হতে চললেও তা এখনও দেয়নি বিবেকানন্দ-২ নম্বর গ্রাম পঞ্চায়েত। এই অভিযোগে পঞ্চায়েত কার্যালয় আটকে বিক্ষোভে শামিল হলেন পশ্চিমবঙ্গ প্রতিবন্ধী সন্মীলনির সদস্যরা। আলিপুরদুয়ার শহর লাগোয়া ভোলারডাবরির বাদলনগর এলাকায় গ্রাম পঞ্চায়েত অফিসের সামনে এই বিক্ষোভ কর্মসূচি চলে। ফলে পঞ্চায়েত কর্মীরা অফিসে ঢুকতে না পারায় অফিসের কাজকর্ম ব্যহত খবর পেয়ে এলাকায় যান বিবেকানন্দ-২ গ্রাম পঞ্চায়েতের প্রধান। শেষ পর্যন্ত প্রধানের আশ্বাসে প্রতিবন্ধী সংগঠনের সদস্যরা পঞ্চায়েত অফিস খোলার অনুমতি দেন।

পঞ্চায়েত অফিসে বিবেকানন্দ-২ গ্রাম পঞ্চায়েতের প্রধান, পুলিশ প্রশাসনের সঙ্গে প্রতিবন্ধী সম্মিলনী সংগঠনের সদস্যরা আলোচনায় বসেন। রাজ্য প্রতিবন্ধী সম্মিলনী সংগঠনের তরফে ভজন সূত্রধর বলেন, ‘কয়েক মাস আগে কম্বল দেওয়ার কথা ছিল। এর জন্য আমরা গ্রাম পঞ্চায়েত অফিসে ফর্ম জমা দেই। কিন্তু শীত প্রায় শেষ এখনও কম্বলের কোনও খবর নেই। অনেক প্রতিবন্ধী সদস্য মাসিক মানবিক ভাতা ঠিক মতো পাচ্ছেন না। জিআরের সুবিধা পাচ্ছেন না। তাই আমরা পঞ্চায়েত অফিস আটকে বিক্ষোভ দেখাই। তবে প্রধান এদিন কম্বল দেওয়ার আশ্বাস দিয়েছেন।’ বিবেকানন্দ-২ নম্বর গ্রাম পঞ্চায়েতের প্রধান বিদেশী কুল্লু বলেন, ‘জানুয়ারিতে কম্বল দেওয়ার কথা ছিল। তবে যার উপর দায়িত্ব ছিল তাঁর মাতৃবিয়োগ হওয়ায় দেরি হয়েছে। তবে এদিন কম্বল দেওয়ার ব্যবস্থা করা হয়েছে।’

- Advertisement -