রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় মিলখা সিংয়ের শেষকৃত্য সম্পন্ন

171

উত্তরবঙ্গ সংবাদ স্পোর্টস ডেস্ক: শুক্রবার গভীর রাতে প্রয়াত হন ‘উড়ন্ত শিখ’ মিলখা সিং। তাঁর প্রয়াণে শোকস্তব্ধ গোটা দেশ।

করোনা পরবর্তী জটিলতার কারণে মৃত্যু হয়েছে মিলখা সিংয়ের। শনিবার সন্ধ্যায় চন্ডিগড়ে রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় তাঁর শেষকৃত্য সম্পন্ন হয়েছে। কেন্দ্রীয় ক্রীড়ামন্ত্রী কিরেন রিজিজু, হরিয়ানার ক্রীড়ামন্ত্রী সন্দীপ সিং ‘উড়ন্ত শিখ’কে শেষ শ্রদ্ধা জানাতে উপস্থিত ছিলেন। মিলখা সিংয়ের ছেলে তথা গল্ফার জীবমিলখা সিং তাঁর শেষকৃত্য করেছেন। কয়েকদিন আগেই মৃত্যু হয়েছে তাঁর স্ত্রী তথা জাতীয় মহিলা ভলিবল দলের প্রাক্তন অধিনায়ক নির্মল কউরের। তার ঠিক পরপরই শুক্রবার রাতে মৃত্যু হয় উড়ন্ত শিখের।

- Advertisement -

মেলবোর্ন (১৯৫৬), রোম (১৯৬০), টোকিও (১৯৬৪)-এই তিনটি অলিম্পিকে দেশের প্রতিনিধিত্ব করেছেন তিনি। এশিয়ান গেমসে চারটি সোনা জিতেছিলেন মিলখা সিং। প্রথম ভারতীয় ক্রীড়াবিদ হিসেবে কমনওয়েলথ গেমসে সোনা জেতেন তিনি। ১৯৫৯ সালে তাঁকে পদ্মশ্রীতে ভূষিত করা হয়। তাঁর প্রয়াণে শোক প্রকাশ করেছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি, রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ, উপরাষ্ট্রপতি বেঙ্কাইয়া নাইডু, অমিতাভ বচ্চন, বিরাট কোহলি, শচীন তেন্ডুলকর সহ অনেকেই।

মোদি টুইটে লিখেছেন, ‘মিলখা সিংয়ের মৃত্যুতে আমরা একজন মহান ক্রীড়াবিদকে হারালাম। তিনি প্রতিটি ভারতীয়ের হৃদয়ে বিশেষ জায়গা নিয়ে রয়েছেন। তাঁর জীবন কাহিনী কোটি কোটি দেশবাসীকে অনুপ্রাণিত করবে। মিলখা সিংয়ের মৃত্যুতে শোকস্তব্ধ।’

রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ টুইট করেছেন, ‘ওঁনার মৃত্যুতে আমি মর্মাহত। তাঁর কঠোর জীবন সংগ্রাম ভারতীয়দের প্রতিটি জেনারেশনকে উদ্বুদ্ধ করবে। তাঁর পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানাচ্ছি।’

উপরাষ্ট্রপতি বেঙ্কাইয়া নাইডু টুইটে লিখেছেন, ‘মিলখা সিংয়ের মৃত্যুতে আমি ভিষণভাবে মর্মাহত। বিশ্বস্তরে তাঁর অনবদ্য পারফরমেন্স প্রতিটি ভারতীয়কে অনুপ্রাণিত করবে।’

বিরাট কোহলি টুইট করেছেন, ‘এমন একজন মানুষ, যিনি একটি গোটা জাতিকে অনুপ্রাণিত করেছেন। শিখিয়েছেন, হাল না ছেড়ে নিজের স্বপ্নের পেছনে দৌড়তে।’

অমিতাভ বচ্চন লিখেছেন, ‘মিলখা সিং প্রয়াত। ভারতের গর্ব, মহান ক্রীড়াবিদ, মহান ব্যক্তিত্ব।’

শচিন তেন্ডুলকর টুইট করেছেন, ‘শান্তিতে ঘুমোন উড়ন্ত শিখ মিলখা সিং। আপনার মৃত্যু প্রতিটি ভারতীয়র মনে গভীর ক্ষতর সৃষ্টি করেছে। কিন্তু আপনার জীবন সংগ্রামের কাহিনী আগামী প্রজন্মকে অনুপ্রাণিত করবে।’

মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় টুইটে লিখেছেন, ‘ওঁনার মৃত্যুতে আমি মর্মাহত। সম্মানের সঙ্গে তাঁকে স্মরণ করা হবে। একজন কিংবদন্তী ক্রীড়াবিদ। তাঁর পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জানাচ্ছি।’