ট্রেনের স্টপেজের দাবিতে ধর্নায় বিধায়ক

130

হরিশ্চন্দ্রপুর: হরিশ্চন্দ্রপুর থানা এলাকার বিহার সীমান্তবর্তী কুমেদপুর জংশনে এক্সপ্রেস ট্রেনের স্টপেজের দাবিতে ধর্নায় বসলেন হরিশ্চন্দ্রপুরের বিধায়ক তজমুল হোসেন। দু’দিন আগেই তিনি বিধানসভাতে এক্সপ্রেস ট্রেনের স্টপেজ থেকে বঞ্চিত করা হচ্ছে কুমেদপুর জংশনকে এ নিয়ে প্রশ্ন তুলেছিলেন। গ্রামবাসীদের ধর্নার ১১তম দিনে এদিন গ্রামবাসীদের সঙ্গে প্ল্যাকার্ড নিয়ে স্টেশন প্ল্যাটফর্মে বসে পড়েন বিধায়ক। প্রসঙ্গত কুমেদপুর জংশন একটি গুরুত্বপূর্ণ স্টেশন। করোনা পরিস্থিতির আগে এই জংশনে সাতটি এক্সপ্রেস ট্রেনের স্টপেজ ছিল। এছাড়াও একাধিক প্যাসেঞ্জার ট্রেনেরও স্টপেজ ছিল। তবে, করোনা আবহে সমস্ত স্টপেজ তুলে নেওয়া হয়েছে। এ বিষয়ে সদলিচক অঞ্চল বিকাশ সমিতির সম্পাদক রফিকুল আলম জানান, হরিশ্চন্দ্রপুর-২ ব্লকের বিস্তীর্ণ এলাকার মানুষ এই জংশনের ওপর নির্ভরশীল। যতক্ষণ না প্রাপ্য ট্রেনগুলির স্টপেজ মিলবে ততক্ষণ ধর্না চলবে বলেও জানান তিনি। এদিন বিধায়ক তজমুল হোসেন জানান, প্রয়োজনে স্টপেজের দাবিতে দিল্লিতে গিয়ে রেল দপ্তরে যোগাযোগ করবেন। গ্রামবাসীদের সমস্যার খুব দ্রুত সমাধান হবে বলেও আশা প্রকাশ করেন তিনি।