জেল হেপাজতে অভিযুক্তের রহস্যমৃত্যু, অশান্তির আশঙ্কায় গ্রামে পুলিশ

93

রায়গঞ্জ: জেল হেপাজতে এক অভিযুক্তের রহস্যমৃত্যুর পর অশান্তির আশঙ্কায় রায়গঞ্জ থানার কর্ণজোড়া ফাঁড়ির অধীন ছটপারুয়া গ্রামকে কড়া নিরাপত্তার চাদরে মুড়ে ফেলা হয়েছে। পুলিশের পাশাপাশি গ্রামে মোতায়েন করা হয়েছে আধাসেনা।

স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, গত শনিবার ছটপারুয়া গ্রামের বাসিন্দা অজয় বর্মন নামে এক ব্যক্তিকে পুলিশ গ্রেপ্তার করে। সেই ঘটনার ২৪ ঘণ্টার মধ্যেই তাঁর রহস্য মৃত্যু হয়। পরিবারের অভিযোগ, জেল হেপাজতে অজয়কে মারধর করেছে পুলিশ। যার ফলে তাঁর মৃত্যু হয়েছে।

- Advertisement -

এদিকে, রবিবার অজয়ের মৃত্যু হলেও সেদিন ময়নাতদন্ত করা হয়নি। দেহও পরিবারের হাতে তুলে দেওয়া হয়নি। সোমবার ময়নাতদন্তের পর দেহ পরিবারের হাতে তুলে দেওয়া হয়। অশান্তি এড়াতে গ্রামে পুলিশ ও আধাসেনা মোতায়েন করা হয়েছে। তবে মৃত্যুর কারণ এখনও ধোঁয়াশা রয়েছে। পুলিশ জানিয়েছে, ময়নাতদন্তের রিপোর্ট আসার পরই মৃত্যুর কারণ স্পষ্ট হবে। তবে অভিযুক্তকে মারধর বা নির্যাতনের কথা অস্বীকার করেছে পুলিশ। যদিও পরিবারের সদস্যরা জানিয়েছেন, তাঁরা ঘটনার উচ্চপর্যায়ের তদন্তের দাবিতে আদালতের দ্বারস্থ হবেন। তাঁরা ফাঁড়ি ঘেরাওয়ের হুঁশিয়ারিও দিয়েছেন।

পুলিশ সুপার সুমিত কুমার জানান, অভিযুক্তকে আদালতে তোলা হয়েছিল। তাঁর ১৪ দিনের জেল হেপাজতের নির্দেশ দেন বিচারক। সংশোধনাগারে থাকাকালীন অসুস্থ পড়লে তাঁকে রায়গঞ্জ মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালের কয়েদি রুমে নিয়ে যাওয়া হয়। চিকিৎসাধীন অবস্থায় তাঁর মৃত্যু হয়ছে। ময়নাতদন্তের রিপোর্ট এলে মৃত্যুর কারণ জানা যাবে।