পদত্যাগে নাছোড় নেপালের প্রধানমন্ত্রী ওলিকে ‘সুপ্রিম’ ধাক্কা

137

কাঠমাণ্ডু: ফের নেপালে রাজনৈতিক অস্থিরতা চরমে। প্রচণ্ড বনাম ওলি সংঘাতে রীতিমতো বিধ্বস্ত সরকারি কাজ। এহেন পরিস্থিতিতে সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশকে কার্যত বুড়ো আঙুল দেখিয়ে ক্ষমতা ত্যাগে নারাজ নেপালের প্রধানমন্ত্রী কে পি শর্মা ওলি।

উল্লেখ্য, গত ২০ ডিসেম্বর জরুরি বৈঠক ডেকে সরকার ভেঙে দেওয়ার বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেন কে পি শর্মা ওলির মন্ত্রিসভার সদস্যরা। সাত জন মন্ত্রী পদত্যাগ করার সঙ্গে সঙ্গে রাষ্ট্রপতি বিদ্যাদেবী ভাণ্ডারির কাছে সংসদ ভেঙে দেওয়ার সুপারিশ করেন প্রধানমন্ত্রী ওলি। এরপরই তাতে সায় দিয়ে সংসদ ভেঙে আগামী নির্বাচনের দিন ঘোষণা করা হয় নেপালের রাষ্ট্রপতি বিদ্যাদেবী ভাণ্ডারির অফিস থেকে। তারপরই সুপ্রিম কোর্টে জাতীয় সংসদ খারিজের জন্য জারি করা বিজ্ঞপ্তির বৈধতা নিয়ে প্রশ্ন তুলে হলফনামা জমা দেন বর্ষীয়ান আইনজীবী কৃষ্ণ প্রসাদ ভাণ্ডারি।

- Advertisement -

এহেন পরিস্থিতিতে গত মঙ্গলবার সংসদের নিম্নকক্ষ ভেঙে দেওয়ার সিদ্ধান্তকে ‘অসাংবিধানিক’ হিসেবে রায় দিয়েছে সুপ্রিম কোর্ট। এরপরই প্রধান বিচারপতি চোলেন্দ্র শুমশেরের নেতৃত্বাধীন পাঁচ সদস্যের সাংবিধানিক বেঞ্চ নির্দেশ দেয়, আগামী ১৩ দিনের মধ্যে সংসদের অধিবেশন ডাকতে হবে। যা ওলিকে প্রধানমন্ত্রীর আসন থেকে সরিয়ে দেওয়ার পথ প্রশস্ত করেছে বলে মত সংশ্লিষ্ট মহলের।