নয়াদিল্লি, ২ ফেব্রুয়ারিঃ কেন্দ্রীয় বাজেটে প্রধানমন্ত্রীর নিরাপত্তার জন্য আরও ৬০ কোটি টাকা বরাদ্দ করলেন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারামন। এতদিন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির স্পেশাল প্রোটেকশন গ্রুপ (এসপিজি)-এর জন্য বরাদ্দ ছিল ৫৪০ কোটি। এখন থেকে ৬০০ কোটি টাকা মোদির নিরাপত্তার জন্য খরচ করা হবে। বর্তমানে প্রধানমন্ত্রী ছাড়া কেউ এসপিজির নিরাপত্তা পান না। স্বাভাবিকভাবেই একজনের জন্য এসপিজির বরাদ্দ এক ধাক্কায় ৬০ কোটি টাকা বাড়িয়ে দেওয়া নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে। অনেকেরই প্রশ্ন, বাজেটে প্রধানমন্ত্রীর স্বপ্নের প্রকল্প স্বচ্ছ ভারত অভিযানে বরাদ্দ কমেছে, বেহাল অর্থনীতি থেকে মুক্তির পথ অর্থমন্ত্রী দেখাতে পারছেন না। সেখানে এভাবে অর্থবরাদ্দের মানে কী?

বর্তমানে এসপিজির সদস্য সংখ্যা প্রায় ৩০০০। দু’বছর আগে এই বাহিনীর জন্য বরাদ্দ ছিল ৪২০ কোটি টাকা। গত বছর বাজেটে এই বরাদ্দ বেড়ে হয় ৫৪০ কোটি টাকা। গত বছর নভেম্বরের আগে পর্যন্ত প্রধানমন্ত্রী ছাড়াও প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিং, সোনিয়া, রাহুল ও প্রিয়াঙ্কা গান্ধির নিরাপত্তার দায়িত্বে ছিল এসপিজি। কিন্তু নভেম্বরে চারজনের এসপিজি নিরাপত্তা সরিয়ে নেয় কেন্দ্র।  আরও দুই প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী এইচডি দেবেগৌড়া ও ভিপি সিংও এসপিজির নিরাপত্তা পাননি। বিষয়টি নিয়ে তুমুল সমালোচনাও শুরু হয়েছিল দেশের রাজনৈতিক মহলে। এ ভাবে প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রীদের নিরাপত্তার সঙ্গে সমঝোতা করা হচ্ছে বলে অভিযোগ জানিয়েছিল বিরোধীরা। যদিও কোনও কিছুকে পাত্তা দেয়নি কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক।