পুলওয়ামা হামলায় চার্জশিট পেশ এনআইএ-র, পাক যোগ স্পষ্ট

966
ফাইল ছবি।

নয়াদিল্লি: পুলওয়ামায় জঙ্গি হামলার ঘটনায় মঙ্গলবার চার্জশিট পেশ করল ন্যাশনাল ইনভেস্টিগেশন এজেন্সি (এনআইএ)। ২০১৯ সালের ১৪ ফেব্রুয়ারি পুলওয়ামায় জঙ্গি হামলার ঘটনায় ৪০ জন সিআরপিএফ জওয়ান শহিদ হন। তার পরপরই ২৬ ফেব্রুয়ারি বালাকোটে এয়ারস্ট্রাইক চালায় ভারত। গুঁড়িয়ে দেওয়া হয় জঙ্গি ঘাঁটি।

পুলওয়ামার ঘটনায় এদিন জম্মুর স্পেশাল কোর্টে চার্জশিট পেশ করছে এনআইএ। ১৯ জন জঙ্গির নাম রয়েছে চার্জশিটে। যার মধ্যে ৭ জন পাকিস্তানি। জইশ ই মহম্মদ (জেইএম) প্রধান মাসুদ আজাহার পুলওয়ামা জঙ্গি হামলার মাস্টারমাইন্ড। জইশ ই মহম্মদ প্রধানের পাশাপাশি আরও ১৮ জন জঙ্গি ১৪ ফেব্রুয়ারির সেই ভয়াবহ হামলার সঙ্গে যুক্ত।

- Advertisement -

১৩ হাজার ৫০০ পাতার চার্জশিটে বলা হয়েছে, উমর ফারুক নামে এক জইশ ই মহম্মদ জঙ্গি পুলওয়ামায় হামলার জন্য দুই জেরিক্যান ভর্তি আইইডি( ইমপ্রোভাইসড এক্সপ্লোসিভ ডিভাইস) প্রস্তুত করেছিল। দুটি জেরিক্যানের মধ্যে যথাক্রমে ১৬০ ও ৪০ কেজি বিস্ফোরক ছিল। যার মধ্যে ছিল অ্যামোনিয়াম নাইট্রেট, জিলেটিন স্টিক, অ্যামোনিয়াম পাউডার ও আরডিএক্স। ২০১৯ এর ২৯ মার্চ নিরাপত্তা বাহিনীর এনকাউন্টারে ফারুকের মৃত্যু হয়। এনআইএ সূত্রের খবর, ২০১৮ সালের এপ্রিল মাসে ফারুককে ভারতে পাঠানো হয়েছিল। ভারতে হামলার জন্য সমস্ত পরিকল্পনা ও ব্যবস্থা করেছিল সে। এনআইএ-র আধিকারিকদের বক্তব্য, পুলওয়ামায় সিআরপিএফ জওয়ানদের কনভয়ে হামলার ঘটনায় পাকিস্তানের যোগ স্পষ্ট, চার্জশিটে তার অকাট্য প্রমাণ রয়েছে।

চার্জিশিটে যেসব জঙ্গির নাম রয়েছে:

১) মাসুদ আজাহার এলভি, ৫২, পাকিস্তানের নাগরিক

২) রউফ আসগার আলভি, ৪৭, পাকিস্তানের নাগরিক

৩)আম্মার আলভি, ৪৬, পাকিস্তানের নাগরিক

৪) শাকির বসির, ২৪, কাকাপোড়া, পুলওয়ামা

৫) ইনশা জান, ২২, কাকাপোড়া, পুলওয়ামা

৬)পীর তারিক আহমদ শাহ, ৫৩, কাকাপোড়া, পুলওয়ামা

৭) ওয়েইজ উল ইসলাম, ২০, শ্রীনগর

৮) মহম্মদ আব্বাস রাঠের, ৩১, কাকাপোড়া, পুলওয়ামা

৯) বিলাল আহমেদ কুচ্চে, ২৮, হাজিবাল, লালহার, পুলওয়ামা

১০) মহম্মদ ইকবাল রাঠের, ২৫, চরার ই শরিফ, বুদগাম

১১) মহম্মদ ইসমাইল, ২৫, পাকিস্তানি নাগরিক

১২) সমীর আহমেদ দার, ২২, কাকাপোড়া, পুলওয়ামা

১৩) আশক আহমেদ নেনগ্রু, ৩৩, রাজপুরা, পুলওয়ামা

১৪) আদিল আহমেদ দার, ২১, কাকাপোড়া, পুলওয়ামা

১৫) মহম্মদ উমর ফারুক, ২৪, পাকিস্তানি নাগরিক

১৬) মহম্মদ কামরান আলি, ২৫, পাকিস্তানি নাগরিক

১৭) সাজ্জাদ আহমেদ ভাট, ১৯, বিজবেহারা, অনন্তনাগ

১৮) মুদাসির আহমেদ খান, ২৪, অবন্তীপুরা

১৯) কারি ইয়াসির, পাকিস্তানি নাগরিক।

চার্জিশিট প্রস্তুত করতে এনআইএ সায়েন্টিফিক ও ডিজিটাল এভিডেন্স জোগাড় করেছে। জইশ ই মহম্মদ কমান্ডার উমর ফারুকের মোবাইল থেকে এনআইএ বেশকিছু কল রেকর্ডিং, হোয়াটস অ্যাপ চ্যাট উদ্ধার করেছে। ফারুকের ফোন থেকে আরডিএক্স ও বিস্ফোরকের সঙ্গে তাঁর ছবিও উদ্ধার করেছে এনআইএ-র তদন্তকারী দল। পুলওয়ামা হামলার কিছুদিন পর এনকাউন্টারে মৃত্যু হয়েছিল ফারুকের। সমস্ত প্রমাণ মোতাবেক, পুলওয়ামা হামলার মূল ষড়যন্ত্রী পাকিস্তানের জইশ ই মহম্মদ জঙ্গি গোষ্ঠী।