শ্রমিকদের স্বাস্থ্যবিধি মেনে একশ দিনের কাজ শুরু

69
পারডুবি: মাথাভাঙা-২ ব্লকের পারডুবি গ্রাম পঞ্চায়েতের উত্তর ও দক্ষিণ বরাইবাড়ি, টাউরিকাটা, ভানুরকুঠি সহ বেশকিছু এলাকায় সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে ও স্বাস্থ্যবিধি মেনে ১০০ দিনের কাজের প্রকল্পে রাস্তায় মাটি কেটে ফেলানোর কাজ শুরু হয়। গ্রাম পঞ্চায়েত সূত্রে জানা গিয়েছে, শুক্রবার ওই সব এলাকায় সরকারি গাইডলাইন মেনে কাজ শুরু হয়েছে। কার্যত লকডাউনের জেরে এলাকার অধিকাংশ শ্রমিকরা কাজ হারিয়ে রোজগারে টান পড়ায় দুবেলা দুমুঠো অন্ন জোগাতে হিমশিম খেতে হচ্ছিল। এমতাবস্থায় স্থানীয় গ্রাম পঞ্চায়েতের উদ্যোগে জব কার্ডের মাধ্যমে ১০০ দিনের কাজ পেয়ে উপকৃত হলেন বলে জানান শ্রমিকরা।
শ্রমিকরা জানান, করোনা অতিমারির জেরে কার্যত লকডাউনে কাজ হারিয়ে রুজিতে টান পড়ায় চরম সমস্যায় পড়েছিলাম। ১০০ দিনের কাজ মেলায় সংসারের কিছুটা হলেও অভাব ঘুচবে। কার্যত লকডাউনে কর্মহীন পুরুষ ও মহিলা শ্রমিকদের কাজ দিতে প্রয়োজনের তুলনায় কম সংখ্যক শ্রমিক নিয়ে সরকারি নির্দেশে কাজ শুরু হয়েছে বলে গ্রাম পঞ্চায়েতের এক আধিকারিক জানিয়েছেন। এবিষয়ে সংশ্লিষ্ট গ্রাম পঞ্চায়েতের প্রধান অশোক বর্মন জানান, কার্যত লকডাউনের জেরে অনেকেই কর্মহীন হয়ে পড়েছেন। তাই সরকারি নির্দেশে সামাজিক দূরত্ব ও স্বাস্থ্যবিধি মেনে বেশ কয়েকটি এলাকায় ১০০ দিনের প্রকল্পে খেটে খাওয়া গরিব মানুষদের কাজ দেওয়া শুরু হয়েছে। পরবর্তীতে পর্যায়ক্রমে অন্যান্য বুথেও কাজ শুরু হবে।
ব্লকের বিডিও অনিবার্ণ দত্ত জানান, শ্রমিকদের কাজ দেওয়ার লক্ষ্যেই বিভিন্ন গ্রাম পঞ্চায়েতে সরকারি উদ্যোগে ১০০ দিনের কাজ শুরু হয়েছে। যেহেতু কার্যত লকডাউন স্বাভাবিকভাবেই তাদের রোজগারও কম তা ১০০ দিনের কাজের মাধ্যমে গ্রামের কিছু সম্পদ ও তাদের রোজগারও বাড়বে। সামাজিক দূরত্ব ও স্বাস্থ্যবিধি মেনে নিয়ম মাফিক কাজ শুরু হয়েছে বলে জানান তিনি।