ডিগবাজি খেলেন পাকিস্তানের মন্ত্রী ফওয়াদ চৌধুরি, ভারতের সঙ্গে ভালো সম্পর্ক চান

664

নয়াদিল্লি: কয়েক ঘন্টার মধ্যেই পাল্টি খেলেন পাকিস্তানের ইমরান খান সরকারের মন্ত্রী ফওয়াদ চৌধুরি। বৃহস্পতিবার ন্যাশনাল অ্যাসেম্বলিতে দাঁড়িয়ে তিনি পাক প্রধানমন্ত্রীর ভাল কাজের ফিরিস্তি দিতে গিয়ে পুলওয়ামা হামলাকে ইমরানের সরকারের ‘বিরাট সাফল্য’ বলে ব্যাখ্যা করেন। যা নিয়ে ইতিমধ্যে ভারত-পাকিস্তান সহ বিশ্বজুড়ে তোলপাড় শুরু হয়েছে। যদিও এদিন রাত ৯ টায় ইসলামাবাদ থেকে ভার্চুয়ালি এক সর্বভারতীয় সংবাদ মাধ্যমের কাছে সাক্ষাৎকারে ফওয়াদ চৌধুরি নিজের বক্তব্যকে অস্বীকার করেন। তাঁর দাবি, তিনি পাক পার্লামেন্টে দাঁড়িয়ে যে বক্তব্য রেখেছিলেন তা ভারতীয় সংবাদ মাধ্যম বিকৃত করেছে। তাঁর গোটা বক্তব্যটা না শুনে রাজনৈতিক স্বার্থে নির্দিষ্ট ক্লিপিংস প্রচার হচ্ছে। তাই নিয়ে তাঁর গোটা বক্তব্যটা মন দিয়ে শোনার আবেদন জানান।

এদিন সর্বভারতীয় সংবাদ মাধ্যম ইন্ডিয়া টুডে’র প্রশ্নত্তোরে ফওয়াদ চৌধুরি বলেছেন,

- Advertisement -

প্রশ্ন: পুলওয়ামা হামলা নিয়ে আজ ন্যাশনাল অ্যাসেম্বলিতে দাঁড়িয়ে ইমরান খান সরকারের ভূমিকা নিয়ে যা বললেন সে বিষয়ে অফিসিয়ালি আরও কিছু জানতে পারি?

ফওয়াদ চৌধুরি: আমি খুব হতবাক যে, আমার বক্তব্যকে বিকৃত করা হয়েছে। এটা হাস্যকর। এটাই প্রমাণ ভারতীয় সংবাদ মাধ্যম কীরকম কাজ করে। আমি সকলকে আমার গোটা বক্তব্যটা শোনার পরামর্শ দেব। পুলওয়ামার ২০১৯ সালের ২৬ ফেব্রুয়ারির ঘটনার কথা বলেছিলাম।

প্রশ্ন: কিন্তু আপনি বলেছেন,‘ঘরে ঢুকে মেরেছে’ এবং ইমরান খান সরকারের নেতৃত্বে পুলওয়ামা হামলা বড় সাফল্য। আপনি কীভাবে এটা অস্বীকার করতে পারেন?

ফওয়াদ চৌধুরি: আমরা ‘ঘরে ঢুকে মারা’ তে বিশ্বাসী নই। যেটা ভারতীয় সংবাদ মাধ্যম বিশ্বাস করে। রাজনৈতিক স্বার্থে ভারতীয় সংবাদ মাধ্যম বক্তব্য বিকৃতি করেছে।

প্রশ্ন: কিন্তু ইমরান খান সরকার বলেছে, পুলওয়ামায় পাকিস্তান সরকার কিছুই করেনি। আপনি পুলওয়ামা আপনাদের সাফল্য। আমরা কাকে বিশ্বাস করব?

ফওয়াদ চৌধুরি: আমি একই কথা বলেছি, যেটা ইমরান খান সরকার বলেছে।

প্রশ্ন: তাহলে কী সেই সাফল্য, যেটা পুলওয়ামা নিয়ে আপনি দাবি করছেন?

ফওয়াদ চৌধুরি: ভারতীয় বায়ুসেনাকর্মী অভিনন্দন বর্তমান সহ দুটি যুদ্ধ বিমানকে নীচে নামানোকে সাফল্য বলেছি।

প্রশ্ন: কিন্তু আপনার বিরোধী নেতা তথা মুসলিম লিগ (এন)-এর সদস্য আয়াজ সাদিক বলেছেন, ‘‘ভারতের হামলার ভয়ে সে দিন পাক সেনাপ্রধান কমর জাভেদ বাজওয়ার পা কাঁপছিল।এবং উইং কমান্ডার অভিনন্দন বর্তমানকে মুক্তি দিয়েছিল ইমরান খানের সরকার। এ বিষয়ে আপনি কী বলবেন?

ফওয়াদ চৌধুরি: এটা নিছক রাজনীতি। এটা কোনও ব্যাপার নয়। এটা নিয়ে ভারতীয়দের খুশি হওয়ার কোনও কারণ নেই। আমরা যুদ্ধ চাই না। আমরা মিটিং ছিলাম। এ ধরনের কিছুই বলা হয়নি। এটা একটা রাজনৈতিক বক্তব্য। যেটা রাজনীতিক একে অপরকে দোষারোপ করে। দুর্ভাগ্যবশত তিনি(সাদিক) মিথ্যা কথা বলেছেন। এমনকী প্রধানমন্ত্রী মোদিও মিথ্যা বলেছেন।

প্রশ্ন: আপনার সরকারই নিজের বিরোধীদের দ্বারা পরিবেষ্টিত। আপনি কি ভারতকে আসল ইস্যুতে টানতে লক্ষ্য করছেন না?

ফওয়াদ চৌধুরি: এটা একটা গণতন্ত্র। সরকারের সমালোচনা করা বিরোধীদের অধিকার আছে। আমরা ভারতের সঙ্গে সুসম্পর্ক চাই। ভারতের জন্য আমাদের কোনও ঘৃণা নেই। বরং বিজেপিই পাকিস্তান বিরোধী সেন্টিমেন্ট ক্রিয়েট করে ভোট বাক্স ভরায়।

প্রশ্ন: আপনি ভারতের সঙ্গে সুসম্পর্কের কথা বলছেন। তাহকে কেন আপনারা দাউদ ইব্রাহিম, মাসুদ আজহার এবং হাফিজ সাঈদের মতো সন্ত্রাসবাদীদের হস্তান্তর করছেন না, যারা ভারতে একাধিক জঙ্গি হামলা ঘটিয়েছে।

ফওয়াদ চৌধুরি: বেলুচিস্তান থেকে আমরাও আপনার এক অফিসারকে গ্রেপ্তার করেছি, যে পাকিস্তানে সন্ত্রাসবাদী হামলার পরিকল্পনা করছিল।

প্রশ্ন: আপনি কুলভূষণ যাদবের সঙ্গে দাউদ ইব্রাহিম, মাসুদ আজহার, হাফিজ সাঈদের তুলনা করছেন?

ফওয়াদ চৌধুরি: আমি বলছি পাকিস্তানের পলিসিতে এমন কোনও সন্ত্রাসবাদ নেই। যেটা ভারত করছে।