জলপাইগুড়ি, ১৩ অগাস্টঃ স্বাধীনতা দিবসের ৪৮ ঘন্টা আগে পরিত্যক্ত ব্যাগক ঘিরে আতঙ্ক দেখা দিল জলপাইগুড়ি শহরের বাবুপাড়া এলাকায়। যদিও কিছুক্ষণ পর সেই ব্যাগের মালিককে খুঁজে পাওয়া যায়। মঙ্গলবার এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়ে গোটা শহরে। পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, এদিন রাতে বাবুপাড়া এলাকায় যাত্রী প্রতিক্ষালয়ে একটি কালো রঙের ব্যাগ পড়ে থাকতে দেখেন স্থানীয় ব্যাবসায়ীরা। ব্যাগটির কোন দাবিদার না থাকায় সেটিকে ঘিরে বোমাতঙ্ক ছড়ায় এলাকায়। স্থানীয় ব্যাবসায়ী অখিল মল্লিক বলেন, ‘রাত সাড়ে সাতটা নাগাদ যথেষ্টই ভীড় দেখা গিয়েছিল যাত্রী প্রতিক্ষালয়ে। তারপর মালবাজার রুটের একটি বাস আসার পর ফাঁকা হয়ে যায় যাত্রী প্রতীক্ষালয়টি। এরপরেই আমাদের নজরে আসে ব্যাগটি। আমরাই বিষয়টি পুলিশকে জানাই’। তিনি জানান, যেহেতু কয়েক বছর আগে বজরাপাড়ায় একটি বোম বিস্ফোরণে বেশ কয়েকজনের মৃত্যু হয়েছিল, তাই পরিত্যক্ত ব্যাগকে ঘিরে আতঙ্কিত হয়ে পড়ে এলাকাল সকলে। ব্যাগটির খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছায় জলপাইগুড়ি কোতয়ালি থানার পুলিশের একটি দল। এরপরেই পুলিশ খবর পায় মালবাজার এলাকার এক ব্যাক্তি ব্যাগটিকে ভুল বশত ওখানে রেখে বাসে উঠে চলে গিয়েছিলেন। ফলে স্বস্তির নিঃশ্বাস ফেলেন সকলেই। কোতয়ালি থানার আই সি বিশ্বাশ্রয় সরকার বলেন, ‘দাবিদারহীন ব্যাগের খবর পাওয়া মাত্রই ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছিল। কিছুক্ষণ পরেই  ব্যাগের দাবিদার পাওয়া গিয়েছে। আমরা তাঁর সাথে যোগাযোগ করেছি। আগামীকাল সকালে ওই ব্যক্তি এসে ব্যাগটি নিয়ে যাবেন বলে আমাদের জানিয়েছেন’।