সামনেই রমজানের মাস শুরু, পকেট সূচি তৈরি প্রিন্টিং প্রেসগুলিতে

69

মালদা: ভোট মরশুমেই শুরু হতে চলেছে ইসলাম ধর্মাবলম্বীদের পবিত্র মাস রমজান। আগামী ১৩ তারিখ ভোররাতে সেহরি আহারের মধ্যদিয়ে রমজান শরীফের সূচনা। চলবে একমাস ধরে। ইদুল ফিতর পালনের মধ্য দিয়ে রমজানের সমাপ্তি ঘটবে ১৪ মে। এই পবিত্র রমজান মাস পালনের প্রস্তুতি শুরু হয়েছে মালদা জেলার সর্বত্র। রমজান অর্থাৎ কৃচ্ছসাধনের মধ্য দিয়ে আল্লাহর প্রাপ্তি। রমজানের আক্ষরিক অর্থ হল দহন বা পুড়িয়ে ফেলা। মানুষ তাদের খারাপ অভিব্যক্তি, অভিপ্রায় কৃচ্ছসাধনার মধ্য দিয়ে দহন করে ফেলে। এই একমাসের অনুশীলন মানুষকে খারাপ কাজ থেকে বিরত থাকার অভ্যাস তৈরি করে। যার প্রভাব বাকি ১১ মাসে দেখা যায়।

রমজানের অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ শর্ত ভোররাতে আহার গ্রহণ যাকে সেহরি বলা হয় এবং সন্ধ্যায় পুনরায় আহার গ্রহণ যা ইফতার নামে পরিচিত। এই দুটি শর্তই সময় দেখে পালন করতে হয়। তাই প্রতি রমজানেই রোজা পালনকারীরা রমজানের সময়সূচি পকেটে রাখেন। কোনও রোজা পালনকারী আজানের ধ্বনি না শুনতে পেলে সময়সূচি দেখে ইফতার বা সেহরি করতে পারে। প্রতি রমজানেই এই সময়সূচি তৈরির একটা হিড়িক চলে মুসলিম মহাল্লাগুলিতে। মসজিদ, মাদ্রাসা, স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন এমনকি ইদের বাজার ধরার লক্ষ্যে ব্যবসায়ীরাও রমজানের সময়সূচি তৈরি করে থাকেন। এবছরও তার ব্যতিক্রম দেখা যায়নি। এখন প্রিন্টিং প্রেসগুলিতে রমরমিয়ে চলছে রমজানের সময়সূচি তৈরির হিড়িক। দু’চার দিনের মধ্যেই এই সময়সূচিগুলি চলে যাবে রোজাপালনকারীদের পকেটে। একমাস মানুষের পকেটে বিরাজ করবে রমজানসূচির তালিকা।

- Advertisement -