একার হাতে স্পেনের পয়েন্ট কাড়লেন রোনাল্ডো

181

সোচি, ১৬ জুনঃ এ যেন বলিউডের কোনো অ্যাকশন ফিল্ম। বিপক্ষকে একার হতে ধ্বংস করে দিচ্ছে হিরো। সেই রকমই দৃশ্যের সাক্ষী থাকল সোচির ফ্রিটজ স্টেডিয়াম। বিশ্বকাপে আইবেরিয়ান ডার্বিতে প্রায় হারা ম্যাচে পর্তুগালের হয়ে একার হাতে স্পেনের পয়েন্ট কেড়ে নিয়ে গেলেন সিআর সেভেন। তাঁর দ্যুতির ছটায় অনুচ্চারিতই থেকে গেলেন পর্তুগালের অন্য ফুটবলাররা। স্পেন টিমে র‍্যামোস, নাচোর মতো রোনাল্ডোর একাধিক রিয়াল মাদ্রিদের সতীর্থ রয়েছেন। তাই এ যেন ছিল বন্ধু ভার্সেস বন্ধুর লড়াই। ম্যাচের তিন মিনিটের মাথায় নাচো বক্সের মধ্যে ফাউল করে বসেন রোনাল্ডোকে। পেনাল্টিতে গোল করতে কোনো ভুল করেননি পর্তুগিজ তারকা। যদিও আস্তে আস্তে ম্যাচে ফিরতে থাকে স্পেন। একের পর এক আক্রমণ আছড়ে পড়ে পর্তুগিজ বক্সে। ২৪ মিনিটে সমতা ফেরান দিয়োগো কোস্তা। বিরতির আগে ৪৪ মিনিটে ফের গোল রোনাল্ডোর। তাঁর গোলার মতো শট স্প্যানিশ গোলকিপার দে গিয়ার হাতে লেগে ছিটকে গোলে ঢুকে যায়। বিরতির পর আবার পট পরিবর্তন। ৫৫ মিনিটে ফের গোল করে সমতা ফেরান কোস্তা। তার ঠিক তিন মিনিট পর পেনাল্টি দেওয়ার পপাস্খলন করে স্পেনকে এগিয়ে দেন নাচো। সবাই তখন ধরেই নিয়েছে হারতে চলেছেন পর্তুগাল। কিন্তু অন্যরকম ভেবেছিলেন সিআর সেভেন। ৮৮ মিনিটে ফ্রি কিক থেকে গোল করে যান রোনাল্ডো। একইসঙ্গে এই বিশ্বকাপের প্রথম হ্যাট্রিকও। ৩-৩ গোলে শেষ হয় ম্যাচ। এদিন হ্যাটট্রিকের পাশাপাশি রোনাল্ডো চাপ বাড়ালেন মেসির ওপরেও। শনিবার মেসি যদি আইসল্যান্ডের বিরুদ্ধে অনুজ্জ্বল থেকে যান, তাহলে ফের তুলনাটা শুরু হয়ে যাবে।