মধ্যবিত্তের সাধ্যের মধ্যে আরটি-পিসিআর টেস্ট

430

নয়াদিল্লী: দিল্লিতে প্রতিদিনই চার হাজারেরও বেশি মানুষ আক্রান্ত হচ্ছেন করোনা ভাইরাসে। কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রকের দেওয়া তথ্য অনুযায়ী, দেশে এখনও পর্যন্ত করোনা আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৯৫ লক্ষ্ ৩৪ হাজার ৯৬৪। মৃত্যু হয়েছে ১ লক্ষ ৩৮ হাজার ৬৪৮ জনের। দেশের সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত রাজ্যগুলির মধ্যে অন্যতম খোদ রাজধানী। সংক্রমণ কমাতে রাজধানীতে একাধিক পদক্ষেপ করা হয়েছে। তা মোবাইল ভ্যানে টেস্টিং হোক, আর রাস্তায় রাস্তায় অক্সিমিটার বসানো।

কিছুতেই নিয়ন্ত্রণে আনা সম্ভব হচ্ছিল না সংক্রমণ। যা কমাতে গেলে টেস্টিংয়ের পরিমাণ আরও বাড়াতে হবে বলে মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা। আর টেস্টিং যাতে আরও বাড়ে, সে দিকেই এক নতুন পদক্ষেপ করল কেজরিওয়াল সরকার। টেস্টিং যাতে বেশি হয়, আর্থিক অবস্থা যাঁদের ভাল নয়, তাঁরাও যাতে টেস্টিং করাতে পারেন প্রাইভেট ল্যাব থেকে, তার ব্যবস্থা করল সরকার। কমিয়ে দেওয়া হল আরটি-পিসিআর (Real-Time Polymerase Chain Reaction) টেস্টের খরচ।

- Advertisement -

কেজরিওয়াল সরকার একটি নতুন নির্দেশিকায় ল্যাবগুলিকে আরটি-পিসিআর টেস্টের দাম কমিয়ে দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছে। আগে এই টেস্টের দাম ছিল ২৪০০ টাকা। যা কমে দাঁড়াল ৮০০ টাকা। বাড়ি থেকে এসে স্যাম্পেল নিয়ে গেলে লাগবে ১২০০ টাকা। জানা গিয়েছে, এই টেস্টের দাম কমানোর পরই ৩৭২৬ টি নতুন করোনা আক্রান্তের খোঁজ মিলেছে রাজধানীতে।

দিল্লিতে এই মুহূর্তে লাল প্যাথ ল্যাব, ড. ড্যাংস ল্যাব, ল্যাবরেটরি সার্ভিসেস অফ ইন্দ্রপ্রস্থ অ্যাপোলো হসপিটাল, ম্যাক্স ল্যাবস, স্টারলিং অ্যাকিউরিস ডায়াগনস্টিক, জেনেস্ট্রিংস ডায়াগনস্টিক সেন্টারসহ আরও বেশ কয়েকটি প্রাইভেট ল্যাবে টেস্টিং চলছে। এছাড়াও দিল্লির সরকারি হাসপাতাল ও বিভিন্ন টেস্টিং সেন্টারেও টেস্টিং চলছে। সেক্ষেত্রে কোনও টাকা লাগছে না।