পশু হাসপাতালে ডাক্তারদের অনুপস্থিতির অভিযোগে বিক্ষোভ

106

হরিশ্চন্দ্রপুর: চিকিৎসকের অভাবে পশুদের চিকিৎসা করছেন কমপাউন্ডাররাই। এই অভিযোগে শনিবার বিক্ষোভে শামিল হলেন হরিশ্চন্দ্রপুর এলাকার প্রাণীপালকরা। বিক্ষোভকারীদের অভিযোগ, সপ্তাহের বেশিরভাগ দিনই এই পশু হাসপাতালে চিকিৎসা পরিষেবা পাওয়া যায়না।

স্থানীয় সূত্রে খবর, হাসপাতালটিতে চিকিৎসক না থাকায় সমস্যায় পড়তে হচ্ছে প্রাণীপালকদের। কাশিমপুরের বাসিন্দা এক প্রাণীপালক সদানন্দ সরকার বলেন, ‘ পশু চিকিৎসার জন‍্য এই স্বাস্থ্য কেন্দ্রই ভরসা। হরিশ্চন্দ্রপুরের রাজ‍্য প্রানী স্বাস্থ‍্য কেন্দ্র বন্ধ থাকায় এখানে পশুদের চিকিৎসা করানো সম্ভব হচ্ছে না। যদি এই কেন্দ্র থেকে পরিষেবা না পাই তাহলে আমাদের পক্ষে পশু পালন করা সম্ভব হবে না। আমরা চাই স্বাস্থ‍্য কেন্দ্র সময় মতো খোলা হোক ও চিকিৎসক নিয়োগ করা হোক।’
তৃণমূল নেতা তথা হরিশ্চন্দ্রপুর ১ নং পঞ্চায়েত সমিতির মৎস‍্য ও প্রানী সম্পদের কর্মাধ‍্যক্ষ নুরুল ইসলাম বলেন, ‘কেন্দ্রে প্রাণী মিত্র ও প্রাণী সহায়ক রয়েছে। এদিন চিকিৎসকের মায়ের চোখের অপারেশন ছিল তাই সে আসতে পারেনি। তবে প্রাণী মিত্ররা কেন কেন্দ্রে আসেনি সেবিষয়ে তিনি খোঁজ নেব।’ এই বিষয়ে বিজেপির হরিশ্চন্দ্রপুর দক্ষিণ মন্ডলের সভাপতি রুপেশ আগরওয়ালা জানান, গ্রাম‍্য মানুষ প্রাণীদের উপরেই জীবিকা নির্বাহ করে। গবাদি পশুপালনের মধ‍্য দিয়ে অনেকের সংসার চলে। রাজ‍্য সরকার বড় বড় ভবন তৈরি করে দিচ্ছে। তবে পরিচালনার জন‍্য চিকিৎসক নিয়োগ করছে না। স্থানীয় বিএলডিও সুজয় তামাং জানান, ওই কেন্দ্রে স্থায়ী কোনও চিকিৎসক নেই। তবে স্বাস্থ‍্যকেন্দ্র পরিচালনার জন‍্য একজন চিকিৎসক রয়েছেন সেখানে। তাঁকে দুটি সেন্টার চালাতে হচ্ছে। বিষয়টি তিনি উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষকে জানাবেন।

- Advertisement -