ফুলবাড়ি স্বাস্থ্যকেন্দ্রের পরিসেবা চাঙ্গা করার দাবি

309

শ্রীবাস মণ্ডল, ফুলবাড়ি : মাথাভাঙ্গা-২ ব্লকের ফুলবাড়ির ক্ষেতি ফুলবাড়ি প্রাথমিক স্বাস্থ্যকেন্দ্রে ২৪ ঘণ্টা পরিসেবা চালুর দাবির পাশাপাশি জোরালো হচ্ছে অ্যাম্বুলেন্স পরিসেবা। এলাকাবাসীর অভিযোগ, প্রাথমিক স্বাস্থ্যকেন্দ্রের পরিসেবা তলানিতে ঠেকেছে। প্রাথমিক স্বাস্থ্যকেন্দ্রের একমাত্র অ্যাম্বুলেন্সটিও অকেজো হয়ে পড়ে রয়েছে দীর্ঘ কয়েক বছর। গত বুধবার ফুলবাড়ির বাসিন্দাদের পক্ষে সাতজনের এক প্রতিনিধিদল মাথাভাঙ্গা-২ ব্লকের বিএমওএইচ-এর সঙ্গে দেখা করে তাঁকে দাবিপত্র দেয়। বিএমওএইচ বলেন, দাবির বিষয়ে আগামী ৬ অগাস্ট বৈঠক ডাকা হয়েছে।

এলাকার জনৈক ধনঞ্জয় বর্মন, কমলেশ অধিকারী, অমূল্য বর্মন প্রমুখ বলেন, স্বাস্থ্যকেন্দ্রে ২৪ ঘণ্টা পরিসেবা চালুর দাবির পাশাপাশি অ্যাম্বুলেন্স পরিসেবার দাবিও জানানো হয়েছে বিএমওএইচ-কে। তাঁরা জানান, ফুলবাড়ি সহ পার্শ্ববর্তী এলাকার মানুষের সুবিধার্থে বাম আমলে নিশিগঞ্জ ক্লাবের পক্ষ থেকে স্বাস্থ্যকেন্দ্রে একটি অ্যাম্বুলেন্স দেওয়া হয়েছিল। সেটি প্রায় সাত বছর ধরে অকেজো হয়ে পড়ে রয়েছে স্বাস্থ্যকেন্দ্রের একটি কোয়ার্টারের পাশের ছোট্ট ঘরে। তাঁদের অভিযোগ, স্বাস্থ্যকেন্দ্রের পরিসেবা উন্নতির জন্য কেউ ব্যবস্থা নিচ্ছেন না। অ্যাম্বুলেন্সটিও মেরামত করে পরিসেবা চালুর উদ্যোগ নেওয়া হচ্ছে না। তাঁদের দাবি, ২৪ ঘণ্টা স্বাস্থ্য পরিসেবা চালুর পাশাপাশি সরকারিভাবে ফুলবাড়িতে অ্যাম্বুলেন্স পরিসেবা চালু করতে হবে।

- Advertisement -

উল্লেখ্য, ১০ শয্যাবিশিষ্ট ক্ষেতি ফুলবাড়ি প্রাথমিক স্বাস্থ্যকেন্দ্রে এক সময় ২৪ ঘণ্টা পরিসেবা মিলত। কিন্তু এখন পরিসেবা তলানিতে এসে ঠেকেছে। এখন এই স্বাস্থ্যকেন্দ্রে সকালে বহির্বিভাগে ডাক্তার বসেন। ওষুধও মেলে। দুপুরের পর ডাক্তার থাকেন না। তাই কেউ অসুস্থ হলে নিয়ে যেতে হয় ধূপগুড়ি বা ফালাকাটা হাসপাতালে।

দীর্ঘ কয়েক বছর ধরে অবহেলিত এই স্বাস্থ্যকেন্দ্রের পরিসেবা নিয়ে এলাকার মানুষের মধ্যে ক্ষোভ জমতে থাকে। য়ার বহিঃপ্রকাশ ঘটে গত ১২ জুলাই। স্বাস্থ্যকেন্দ্রের ডাঃ রাহুল ভট্টাচার্যকে আটক করে বিক্ষোভ দেখান স্থানীয়রা। সেদিন বিক্ষোভ আন্দোলন চলে দুপুর থেকে বিকাল ৫টা পর্যন্ত। ডাক্তারকে আটকে স্থানীয়রা দাবি তোলেন, স্বাস্থ্যকেন্দ্রে ২৪ ঘণ্টা পরিসেবা চালু করতে হবে। সেদিন স্বাস্থ্যকেন্দ্রের ডাঃ রাহুল ভট্টাচার্য, ঘোকসাডাঙ্গা থানার পুলিশ ও মাথাভাঙ্গা-২ ব্লকের বিডিওর প্রতিনিধির সঙ্গে আলোচনার পরে আন্দোলন তুলে নেন স্থানীয়রা।

সেই একই দাবিতে বুধবার মাথাভাঙ্গা-২ ব্লকের বিএমওএইচ-কে ডেপুটেশন দেন ফুলবাড়ির বাসিন্দারা। তাঁরা জানান, স্বাস্থ্যকেন্দ্রের পরিসেবা নিয়ে যতদিন না তাঁদের দাবি পূরণ না হবে, ততদিন পর্যন্ত এলাকার মানুষের আন্দোলন চলতে থাকবে। মাথাভাঙ্গা-২ ব্লকের বিএমওএইচ ডাঃ সুভাষ গাইন জানান, ফুলবাড়ির প্রাথমিক স্বাস্থ্যকেন্দ্রে ২৪ ঘণ্টা পরিসেবার দাবি জানিয়ে বুধবার এলাকাবাসী আমাকে স্মারকলিপি দিয়েছেন। আগামী ৬ অগাস্ট আমার অফিসে এই বিষয়ে এলাকাবাসীর সঙ্গে বৈঠক করব। বৈঠকে উপস্থিত থাকবেন মাথাভাঙ্গা-২ ব্লকের বিডিও, ঘোকসাডাঙ্গা থানার পুলিশের প্রতিনিধি এবং সিএমওএইচ-এর প্রতিনিধি।