বিজেপি সাংসদের ছবি ঢেকে দিলেন দলের বিধায়ক, জল্পনা রায়গঞ্জে

198

রায়গঞ্জ: কিছুদিন আগেই জেলা বিজেপি নেতৃত্বের বিরুদ্ধে তোপ দেগেছিলেন রায়গঞ্জের বিজেপি বিধায়ক কৃষ্ণ কল্যাণী। এবার নিজের দপ্তরে স্থানীয় বিজেপি সাংসদ তথা প্রাক্তন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী দেবশ্রী চৌধুরীর ছবি ঢেকে দিলেন তিনি। এই ঘটনায় ফের একবার বিজেপির সঙ্গে বিধায়কের দূরত্ব নিয়ে জল্পনা তৈরি হয়েছে। দপ্তরের ভিতরে থাকা দুটি ফ্লেক্সে প্রধানমন্ত্রী, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী, সর্বভারতীয় সভাপতি ও রাজ্য সভাপতি ছবির পাশে সাংসদের ছবি ছিল। সাংসদের একটি ছবি বিজেপির পতাকা দিয়ে ঢেকে দেওয়া হয়েছে, অন্যটির ওপর কাগজ সেঁটে দেওয়া হয়েছে। কার্যালয়ের বাইরে প্রাক্তন জেলা সভাপতি বিশ্বজিৎ লাহিড়ীর ছবি থাকলেও সাংসদ দেবশ্রী চৌধুরীর ছবিটি কাগজ দিয়ে ঢেকে দেওয়া হয়েছে।

প্রসঙ্গত, তিনদিন আগে বিধায়ক বিজেপির সমস্ত কর্মসূচি থেকে নিজেকে সরিয়ে নেওয়ার কথা সাংবাদিক সম্মেলন করে জানিয়েছিলেন। তারপর তাঁর এই আচরণ ঘিরে গেরুয়া শিবিরের অন্দরে জল্পনা শুরু হয়েছে। যদিও বিধায়ক কৃষ্ণ কল্যাণীর দাবি, কার্যালয়টি সংস্কারের কাজ চলছে। ফ্লেক্সগুলি ভেঙে গিয়েছিল বলে ঢেকে দেওয়া হয়েছে। বিজেপির জেলা সভাপতি বাসুদেব সরকারকে প্রতিক্রিয়া জানতে ফোন করা হলে তিনি ফোন কেটে দিয়ে মেসেজ করে মিটিংয়ে ব্যস্ত থাকার কথা জানান। যদিও বিধায়কের কার্যালয়ের এক কর্মী নিতাই সরকারের দাবি, সংস্কারের কাজ হবে বলেই ছবি ঢেকে দেওয়া হয়েছে। তবে কার্যালয়টি যদি সত্যি সংস্কার করা হয়, তবে অন্য ছবিগুলি কেন ঢেকে দেওয়া হল না? সেই প্রশ্ন উঠেছে। তৃনমূল কংগ্রেসের মহিলা জেলা সভানেত্রী চৈতালি ঘোষ সাহা জানান, বিধায়ক ও সাংসদ কেউই রায়গঞ্জের কাজ করেন না। তাই তাঁদের মধ্যে কি নিয়ে বিরোধ তা জানা নেই। বিধায়কের তৃণমূল কংগ্রেসে যোগদানের বিষয়টি রাজ্য নেতৃত্বের ওপর ছেড়ে দেন তিনি। এনিয়ে সাংসদ দেবশ্রী চৌধুরীকে ফোন হলেও রিসিভ না করায় কোনও প্রতিক্রিয়া মেলেনি।

- Advertisement -