করোনা সংক্রমণের হদিস মেলায় আজ থেকে বন্ধ মোহনবাটি বাজার

349

দীপঙ্কর মিত্র, রায়গঞ্জ: করোনা সংক্রমণের হদিস মেলার পর নিজেদের এবং ক্রেতাদের সুরক্ষার্থে আগাম সিদ্ধান্ত মতোই বুধবার থেকে রায়গঞ্জের মোহনবাটি বাজার বন্ধ করে দিলেন ব্যবসায়ীরা। তবে বাজারের মাছের কয়েকটি আড়ত খোলা ছিল। আপাতত পাঁচদিনের জন্য বাজার বন্ধের সিদ্ধান্ত নেওয়া হলেও প্রয়োজনে সময়সীমা আরও বাড়ানো হতে পারে বলে জানিয়েছেন মোহনবাটি বাজার কমিটির সদস্যরা।

রায়গঞ্জ তথা উত্তর দিনাজপুর জেলার অন্যতম বৃহত্তম বাজার হল মোহনবাটি বাজার। এই বাজারে পাইকারি ও খুচরো সমস্ত ধরনের সামগ্রী ক্রয় বিক্রয় করতে প্রতিদিন হাজার হাজার মানুষের সমাগম হয়। সকাল থেকে রাত এগারোটা পর্যন্ত প্রতিদিন বেচাকেনা হয়। মাছ-মাংস থেকে শাক-সবজি ও নিত্য প্রয়োজনীয় সমস্ত জিনিসের দোকান রয়েছে এখানে।

- Advertisement -

গত সোম ও মঙ্গলবার বাজারের দুই ব্যাবসায়ীর শরীরে করোনার হদিস মিলতেই আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে ক্রেতা-বিক্রেতাদের মধ্যে। প্রথমে বাজার বন্ধ রাখার বিষয়ে বাজার কমিটির সদস্যরা দ্বিমত পোষণ করলেও পরে নিজেরাই একমত হয়ে পাঁচদিন বাজার বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নেন।

মঙ্গলবার রায়গঞ্জ শহরে মাইকিং করে বাজার বন্ধের প্রচার করে মোহনবাটি বাজার কমিটি। আজ থেকে নিজেদের উদ্যোগেই রায়গঞ্জ মোহনবাটি বাজারে সমস্তরকম সামগ্রীর ক্রয়-বিক্রয় বন্ধ করে দেওয়ার পাশাপাশি পুরো বাজার সিল করে দেওয়া হয়েছে। এদিন যেসকল ক্রেতারা বাজার বন্ধের বিষয়টি জানতেন না তাঁরা এসে ঘুরে গেলেও ব্যবসায়ীদের এই উদ্যোগকে সাধুবাদ জানিয়েছেন।

এই বিষয়ে রায়গঞ্জ মার্চেন্ট অ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক অতনু বন্ধু লাহিড়ী বলেন, ‘বাজারের প্রতিটি দোকান বন্ধ ছিল। তবে মাছ বাজারের কয়েকজন আড়তদারের মাছ থাকায় তাঁরা খোলা রাখেন। আমরা চাই ব্যবসায়ীদের পাশাপাশি ক্রেতারাও সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দিক।’

মোহনবাটি বাজার কমিটির সদস্য তাপস সাহা জানিয়েছেন, আপাতত পাঁচ দিনের জন্য বাজার বন্ধ করা হলেও প্রয়োজনে সময়সীমা আরও বাড়ানো হতে পারে।