গত বছর ৯৬৫ বার ভূমিকম্প হয়েছে দেশে, উদ্বেগ কেন্দ্রের

178

নয়াদিল্লি: দেশ তথা বিশ্বে ভূমিকম্পের প্রবণতা ক্রমশ বেড়েছে। বারবার হওয়া ভূমিকম্পে ভূবিজ্ঞানীদের কপালেও চিন্তার ভাঁজ পড়েছে। এই ভূমিকম্প কোনও বড় প্রাকৃতিক দুর্যোগের ইঙ্গিত নয়তো? চিন্তায় রয়েছেন ভূবিজ্ঞানীরাও। এই পরিস্থিতি মোকাবিলায় কড়া ব্যবস্থা নিচ্ছে সরকার। শুক্রবার কেন্দ্রীয় সরকার জানিয়েছে, কেন এমনটা হচ্ছে তা জানতে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ভূতাত্ত্বিক বিভাগের সঙ্গে যৌথভাবে গবেষণা করা হবে।

ভূ-বিজ্ঞান মন্ত্রী হর্ষবর্ধন জানিয়েছেন, শুধুমাত্র ২০২০ সালে দেশে ৯৬৫ বার ভূমিকম্প হয়েছে। রিখটার স্কেলে কম্পনের মাত্রা ছিল ৩। এর মধ্যে ১৩ বার ভূমিকম্প হয়েছে দিল্লি সংলগ্ন এলাকায়। দিল্লি বা তার পার্শ্ববর্তী অঞ্চলে কোথায় ভূমিকম্পের কেন্দ্র বা তার চরিত্র কেমন, তা বুঝতে ন্যাশনাল সেন্টার ফর সিসমোলজি চৌম্বকীয় ভূতত্ত্ব সমীক্ষা শুরু করবে। জানা গিয়েছে, আইআইটি কানপুর, দেরাদুনের ওয়াদিয়া ইনস্টিটিউট অব হিমালায়ান জিওলজি যৌথভাবে এই সমীক্ষা চালাবে। ন্যাশনাল সেন্টার ফর সিসমোলজি বর্তমানে ১১৫টি ভূমিকম্প কেন্দ্র নিয়ে পর্যালোচনা করছে।

- Advertisement -