ত্রিশ বছরেও সেতু পাননি মথুরার বিশন লাইনের বাসিন্দারা

118

সোনাপুর: ত্রিশ বছর আগে সেতু ভেঙে পড়েছিল। এখনও সংস্কার হয়নি। সেতু নিয়ে বিভিন্ন জনপ্রতিনিধির কাছ থেকে শুধুই মিলেছে আশ্বাস। কাজের কাজ কিছুই হয়নি। আজও সেতুন পাননি মথুরার বিশন লাইনের বাসিন্দারা।

আলিপুরদুয়ার-১ ব্লকের মথুরা গ্রাম পঞ্চায়েত এলাকার অন্তর্গত ১২/৬৪ বুথের বিশন লাইনে রয়েছে ভাঙা সেতু। স্থানীয় বাসিন্দারা জানান, এলাকার পাশ দিয়ে বয়ে চলা বানিয়া নদীর শাখা থেকে একটি নদী বের হয়ে গ্রামের মাঝ বরাবর বয়ে গিয়েছে। চা বাগান অধ্যুষিত এলাকায় এই নদীর ওপর সেতু তৈরি করেছিল মথুরা চা বাগান কর্তৃপক্ষ। ১৯৯৩ সাল নাগাদ সেই সেতুর একভাগ ভেঙে পড়ে। এরপর স্থানীয় গ্রাম পঞ্চায়েতের তরফে সাঁকো তৈরি করে দেওয়া হয়। প্রায় ত্রিশ বছর ধরে সেতু পারাপারের জন্য ওই সাঁকোই ভরসা এলাকাবাসীর। সেতু না থাকায় বেনিয়া মিন এবং বিশন লাইন এই দুই গ্রামের যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন। বর্ষাকালে অবস্থা আরও খারাপ হয়। এবছরও পরিস্থিতি একই থাকার আশঙ্কা করছেন স্থানীয় বাসিন্দারা। এই বছরও কোনও সাঁকো তৈরি হয়নি বলে অভিযোগ তাঁদের। স্থানীয় গ্রাম পঞ্চায়েতের তরফে ২০১৮ এবং ২০১৯ সালে ভাঙা সেতুর পাশেই বাঁধ বানানো হয়, তবে সেটাও ভেঙে পড়ছে।

- Advertisement -

স্থানীয় বিজেপি নেতা রাজেন এক্কা জানান, বাম সরকার এবং তৃণমূল সরকার বারবার সেতু তৈরির আশ্বাস দিলেও কাজের কাজ কিছুই হয়নি। মথুরা গ্রাম পঞ্চায়েত প্রধান অশোক চিক বড়াইক জানান, কিছুদিন আগেই পূর্ত দপ্তর থেকে সেতুর সার্ভে করে গিয়েছে। সেতু তৈরির বিষয়টি গুরুত্ব দিয়ে দেখা হচ্ছে।