উইকেটের পেছনে দাঁড়িয়ে চিয়ারলিডার ঋষভ

চেন্নাই : বল ঘুমেগা তো ইয়ে ঝুমেগা। ফাসেগা ফাসেগা, মজা আনে লাগেগা। থোড়া সা আগে, থোড়া সা আগে, মিলখা সিং ভাগে, প্যায়ারা অক্ষর জাগে। অলি পোপ কো ললিপপ!

সকাল থেকে দুপুর গড়িয়ে বিকেল। দিনের শুরু থেকে শেষঋষভ পন্থ অনর্গল। উইকেটের পিছনে দাঁড়িয়ে সতীর্থদের সতর্ক রাখার পাশে বোলারকে উৎসাহ দেওয়ার ব্যাপারে তুলনাহীন তিনি।

- Advertisement -

চেন্নাইয়ে ভারত বনাম ইংল্যান্ড টেস্টে স্টাম্প মাইক্রোফোনের মাধ্যমে চিয়ারলিডার ঋষভের সক্রিয়তা ধরা পড়েছে বারবার। ইংরেজ ব্যাটসম্যানদের বিভ্রান্তিতে ফেলে অশ্বীন-অক্ষর-ইশান্তদের ক্রমাগত উৎসাহ দিয়ে গিয়েছেন পন্থ। তাঁর সক্রিয়তা দেখার পর সোশ্যাল দুনিয়ায় স্পাইডারম্যান ঋষভকে বলা হচ্ছে, চিয়ারলিডার।

কিরন মোরে, নয়ন মোঙ্গিয়া, বিজয় দাহিয়া, মহেন্দ্র সিং ধোনি- ভারতীয় ক্রিকেটে উইকেটের পিছন থেকে সতীর্থদের উৎসাহ দেওয়ার পাশে বিপক্ষ ব্যাটসম্যানের মনোসংযোগে চিড় ধরানোর স্কিল নতুন নয়। কিন্তু ঋষভ এই স্কিলকে ভিন্ন স্তরে নিয়ে যাচ্ছেন তাঁর তুখোড় রসবোধের মাধ্যমে। তাঁর পূর্বসুরীদের তিনি এব্যাপারে পিছনে ফেলে দেবেন কি না, সময় বলবে। কিন্তু ভারতীয় ক্রিকেটের ওয়ান্ডার কিড থেকে কোহলিদের চিয়ারলিডার- এখনও পর্যন্ত দারুণ সফল ঋষভ।

বিশেষ করে ইংল্যান্ডের ব্যাটসম্যান অলি পোপ কো ললিপোপ শিরোনাম ইতিমধ্যেই প্রবল জনপ্রিয়তা পেয়েছে সোশ্যাল দুনিয়ার পাশে টিম ইন্ডিয়ার অন্দরেও। দিনের খেলার শেষে ভার্চুয়াল সাংবাদিক সম্মেলনে হাজির হয়ে অক্ষর প্যাটেলও ঋষভের এমন রসবোধের প্রশংসা করেছেন। তিনি বলেন, চাপ বা কঠিন পরিস্থিতির মধ্যে ঋষভের রসবোধ অনেক সময়ই দারুণ কাজে দেয়।

পন্থের সতীর্থ অক্ষরের মতোই প্রাক্তন ভারতীয় উইকেটকিপাররাও তাঁর এমন মনোভাবকে স্বাগত জানিয়েছেন। নয়া প্রজন্মের প্রতিনিধি হিসেবে ঋষভ দলকে চাঙ্গা রাখা ও বিপক্ষকে নাজেহাল করার স্কিলকে ভিন্ন পর্যায়ে নিয়ে গিয়েছেন বলে মনে করছেন মোরে, মোঙ্গিয়ারা।

কিরন মোরে বলেন, মাঠে আলাদা একটা পরিবেশ তৈরি করা জরুরি। ঋষভ দারুণভাবে কাজটা করছে। দলকে সতর্ক ও চাঙ্গা রাখার জন্যও উইকেটকিপারের সক্রিয় থাকা দরকার। বিজয় দাহিয়াও একইভাবে জানাচ্ছেন, নিজের অভিজ্ঞতা থেকে বলছি, উইকেটকিপার এমন একটা জায়গায় থাকে, যেখান থেকে পুরো মাঠটা বোঝা যায়। তাই একজন কিপার যদি নিজস্ব স্টাইলে কথা বলে দলকে সক্রিয় ও সতর্ক রাখতে পারে, তার চেয়ে ভালো কিছু হয় না।

নয়ন মোঙ্গিয়ার মতে, ফিল্ডিংয়ের সময় উইকেটকিপারই অধিনায়ক, আমি এমনই বিশ্বাস করি। তাই দলকে চাঙ্গা রাখা একজন কিপারের দায়িত্ব। ঋষভ সঠিকভাবেই কাজটা করছে। বলতে পারেন, ওর রসবোধ ভারতের বাকি ক্রিকেটারদের কোনও চাপই অনুভব করতে দেবে না।